ঢাকা, বুধবার , ১৫ আশ্বিন ১৪২৭ , ৩০ সেপ্টেম্বর , ২০২০ বাংলার জন্য ক্লিক করুন
  
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
শিরোনাম : > কুমারখালীতে ভ্রাম্যমান আদালতের অভিযান   > চাঁপাই গ্রামীণ পাবসস`র ত্রি-বার্ষিক নির্বাচনে সভাপতি জাকেরুল, সম্পাদক বাসির   > মাগুরায় প্রধানমন্ত্রীর জন্মদিন পালন ও করোনা টেস্ট ল্যাব উদ্বোধন   > ফুলপুরে শেখ হাসিনার ৭৪তম জন্মদিন উপলক্ষে আলোচনা সভা ও মিলাদ মাহফিল   > সরকারি অফিসের ওয়েব পোর্টালে তথ্যের ঘাটতি - টিআইবি   > লক্ষ্মীপুরে স্ত্রী হত্যায় স্বামীর যাবজ্জীবন কারাদন্ড   > দেশে ২৪ ঘণ্টায় করোনায় মৃত্যু ২৬, শনাক্ত ১৪৮৮   > ফেরি ঘাটে ভাঙন, চলাচল বন্ধ   > সালথায় ১০ টাকা কেজির চাল বিতরণ শুরু   > মাগুরায় প্রধানমন্ত্রীর জন্মদিন উপলক্ষে আলোচনা সভা  

   সারা বাংলা
  আনসার ও গ্রাম প্রতিরক্ষা বাহিনীর আধুনিকায়নে দিন বদলের সরকারের উদ্যাগ গ্রহণ প্রয়োজন
  Publish Time : 21 October 2019, 9:43:8:PM

এম.সাদ্দাম হোসেন (পবন) :


শান্তি-শৃঙ্খলা-উন্নয়ন ও নিরাপত্তায় সর্বত্র আমরা এই মাইলফলক কে সামনে রেখেই আনসার ও গ্রাম প্রতিরক্ষা বাহিনী দেশ ও জাতির সেবায় গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করছেন। সু-শৃঙ্খল এই বাহিনীর সদস্যরা জন-নিরাপত্তা, দরিদ্র জনগোষ্ঠির আর্থ-সামাজিক উন্নয়নের মাধ্যমে উন্নত সমাজ প্রতিষ্ঠিত করণ সহ সর্ববৃহৎ প্রশিক্ষণ প্রদানকারী বাহিনী হিসেবে অবস্থান সর্বোচ্চ সম্মান জনক। দেশজুড়ে এতো বিপুল সংখ্যক প্রশিক্ষিত জনবল কোন বাহিনীতে নেই, যা সরকারের হাতিয়ার হিসাবে আনসার ও ভিডিপিকে বিবেচিত করতে হয়।
অন্য বাহিনীর চেয়ে আধুনিকায়নের ছোঁয়া থেকে পিছিয়ে থাকলেও গ্রাম প্রতিরক্ষা দল ভিডিপি’র অগ্রগতি যেন সবার উর্ধে। ইউনিয়ন পর্যায়ে কর্মচারী প্রবিধান ও বেতন কাঠামো অনুযায়ী সরকারের আরও ৭টি মন্ত্রনালয়ের কর্মকর্তা-কর্মচারীরা দায়িত্ব পালন করছেন। অথচ স্বরাষ্ট্র মন্ত্রনালয়ের আওতায় আনসার ও গ্রাম প্রতিরক্ষা বাহিনীর সাংগঠনিক কাঠামোয় ইউনিয়ন পর্যায়ে সম্মানী ভাতা প্রদেয় পদ ভিডিপি দলনেতা-নেত্রীদের জীবন মান উন্নয়নে আশানুরুপ কোন সফলতা দেখা যায়নি। বিএনপি সরকারের শাসন আমলে আনসার ও ভিডিপি’র উন্নয়নে কোন রকমের পদক্ষেপ নেয়া হয়নি। বিএনপি সরকারের শাসনকালে আনসার ও ভিডিপি’র কর্মকর্তা-কর্মচারী ও সম্মানী ভাতা প্রাপ্য সদস্যদের ভাগ্যর কোন পরিবর্তন আসেনি। বিএনপি সরকার বাহিনীর ভাতা ভোগী সদস্যদের মাসিক ১৮০ টাকা হতে তিন দফা ক্ষমতায় থাকা কালিন ২’শ ৫০ টাকা পর্যন্ত মাসিক ভাতা টেনে তুলে ছিলেন যা লজ্জা জনক বলে বলে জানিয়েছেন অবসরে থাকা একাধিক কর্মকর্তা। আনসার ও ভিডিপি’র উন্নয়নের দিকে সুদৃষ্টি দেয়নি বিএনপি সরকার। যার কারনে আনসার ও গ্রাম প্রতিরক্ষা বাহিনী তৎকালিন সময়ে অনেক ক্ষেত্রেই পিছিয়ে ছিল।


২০০৮ সালে আওয়ামী লীগ সরকার গঠনের পর আনসার ও গ্রাম প্রতিরক্ষা বাহিনীর উন্নয়নে ব্যাপক সাফল্যে এবং এই বাহিনীকে অন্যান্য বাহিনীর ন্যায় যুগোপযোগি করতে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বিভিন্ন পদক্ষেপ গ্রহন করেছেন। আনসার ও ভিডিপিকে আরও সমৃদ্ধ করে গড়ে তোলার লক্ষ্যে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এই বাহিনীর উন্নয়নমূলক খাতে বরাদ্দ বাড়ানো,কর্মকর্তা-কর্মচারীদের পদায়ন,নতুন নতুন পদ সৃজনসহ জনবল নিয়োগ এবং অত্যাধূনিক প্রশিক্ষনের আওতায় আনসার-ভিডিপি কর্মকর্তা-কর্মচারী,সদস্যদের দক্ষতা বৃদ্ধির মাধ্যমে অন্যান্য বাহিনীর সাথে যুগোপযোগি করেছেন। বিষয়টি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নজরে আসলে ইউনিয়ন ভিডিপি দলনেতা-নেত্রীদের মাসিক সম্মানী ভাতা ২’শ ৫০ টাকা থেকে বাড়িয়ে তা মাসিক ২ হাজার ৫’শ টাকা করেছেন। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার এই মানবিক পদক্ষেপে ইউনিয়ন ভিডিপি দলনেতা-নেত্রীরা ভাল কিছু পাওয়ার আশাবাদী হয়ে রয়েছে। মানবিক প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার স্বপ্ন পূরনে ভিডিপি দলনেতা-নেত্রীরা উন্নয়ন ও গ্রামীন শান্তি শৃংখলা রক্ষায় গুরুত্বপূর্ন ভূমিকা পালন করছেন। এসব দেশপ্রেমিক ভিডিপি দলনেতা-নেত্রীরা তাদের জীবন মান উন্নয়নের আশায় মানবিক প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার দিকে তাকিয়ে রয়েছে।


বাহিনীর কয়েকটি জেলা কার্যালয় সূত্র জানায়,গ্রাম প্রতিরক্ষা দল ভিডিপি’র সাংগঠনিক কাঠামোয় মাঠ পর্যায়ে একটি মাত্র সরকার প্রদত্ত সম্মানি ভাতা প্রদেয় পদ ভিডিপি ইউনিয়ন দলনেতা-নেত্রী। ভিডিপি ইউনিয়ন দলনেতা-নেত্রীকে উপজেলা আনসার ও ভিডিপি কার্যালয়ে ২ দিন মাসিক সভায় অংশগ্রহণ, এলাকার আইন শৃঙ্খলা সম্পর্কে থানায় অবহিত করণের জন্য ১ দিন যেতে হয়, পরিবার পরিকল্পনা অফিসে স্থায়ী ও অস্থায়ী পদ্ধতির কার্যক্রম নিয়ে ২দিন, ইউনিয়ন পরিষদে ইউনিয়ন উন্নয়ন সমন্বয় কমিটির সভা, ইউনিয়ন দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা কমিটির সভা, ইউনিয়ন আইন শৃঙ্খলা সংক্রান্ত সভাসহ বাহিনীর গুরুত্বপূর্ন এসব কাজে মাসে ২০ কর্ম-দিবসে দায়িত্ব পালন করে থাকেন। এর বাহিরেও সংসদ ও উপজেলা এবং স্থানীয় সরকার নির্বাচন,পূজা মন্ডপে আইন শৃঙ্খলা রক্ষা, রাষ্ট্রীয় ও জাতীয় দিবস এবং উন্নয়ন কর্মসূচীতে ইউনিয়ন ভিডিপি দলনেতা নেত্রীরা দায়িত্বপালন করছেন। রাষ্ট্রীয়, জাতীয় ও সরকারের বেঁধে দেয়া দায়িত্বগুলো অক্লান্ত পরিশ্রমের মাধ্যমে নিরলস ভাবে পালন করে ৩ মাস পর পর যৎ-সামান্য সম্মানী ভাতা নিয়ে তাদের সন্তষ্টি থাকতে হয়। যা ওই সম্মানী ভাতার অর্থ দিয়ে একজন ইউনিয়ন ভিডিপি দলনেতা-নেত্রীর পরিবার মাসের ভরণ পোষন তো দুরে থাক; বর্তমান বাজার ব্যবস্থায় পরিবার নিয়ে ৫ দিন জীবিকা নির্বাহ করতে পারবে না। সম্ভাবনাময় এই বাহিনীর সম্মানার্থে ইউনিয়ন দলনেতা-নেত্রীর সম্মানী ভাতা প্রতিবেদনে বিস্তারিত বর্ণনা প্রদান করা সম্ভব নয়। একটি পরিবারের একজন পরিবার প্রধানের উপার্জিত অর্থ দিয়ে জীবিকা নির্বাহ, ছেলে-মেয়ের লেখাপড়া ব্যয় মেটানো হয়। কিন্তু ইউনিয়ন ভিডিপি দলনেতা তিনিও একটি পরিবার প্রধান, সাংসারিক ব্যয়ভার মেটানোর সক্ষমতা কতটুকু তা বাস্তবে দেখলে অনেকটা অভিজ্ঞতা সঞ্চার হবে।
বাহিনীর ইতিবৃত্ত সূত্র জানায়, ১৯৪৮ সালের ১২ ফেব্রুয়ারী স্থানীয় জন-নিরাপত্তায় অন্যান্য বাহিনীকে সহায়তা করার লক্ষ্যকে ঘিরে আনসার বাহিনী প্রতিষ্ঠা লাভ করে। পরবর্তী সময়ে ৫২’র ভাষা আন্দোলনের মধ্য দিয়ে মাতৃভাষাকে রাষ্ট্রীয় ভাষায় প্রতিষ্ঠিত করতে গিয়ে শহীদ হন আনসার কমান্ডার আব্দুর জোব্বার যার নামে আনসার ও ভিডিপি একাডেমী চত্বরে স্কুল এন্ড কলেজের নাম করণ করা হয়। সর্বকালের সর্বশ্রেষ্ঠ বাঙালি জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মজিবুর রহমান এর ঐতিহাসিক ৭ই মার্চ রেসকোর্স ময়দানে দেয়া কালজয়ী ভাষনে মাত-ৃভূমির টান ও দেশাত্ববোধ আনসার বাহিনী সদস্যসহ উর্দ্ধতন কর্মকর্তাদের জাগ্রত করেছিল, যার ফলে ৪০ হাজার রাইফেল সহ আনসার বাহিনী অকুতোভয় সদস্যরা ঝাঁপিয়ে পড়েছিল মহান মুক্তিযুদ্ধে স্বাধীন রাষ্ট্রের প্রতিজ্ঞায়। দেশকে শত্রু মুক্ত করার সংগ্রামে পাক-হানাদার বাহিনীর সম্মুখযুদ্ধে আনসার বাহিনীর ৬৭০ জন সদস্য শহীদ হন। স্বাধীন বাংলাদেশের মানচিত্রে আনসার বাহিনী অন্যতম অংশীদার, যাদের রক্তের বিনিময় অর্জিত হয়েছে মোদের স্বাধীনতা । ঐত্যিহাসিক ১৭ এপ্রিল অস্থায়ী মুজিব নগর সরকার কে প্রথম আনসার বাহিনী স্বীকৃতি ও সম্মান জানিয়ে ১২ জন আনসার সদস্য গার্ড অব অনার প্রদান করে, যা ইতিহাসে সর্বোচ্চ সম্মানের দাবীদার। তার স্বীকৃতি স্বরূপ গণ-প্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকার একমাত্র আনসার বাহিনীকে ১৭ এপ্রিল ঐত্যিহাসিক মুজিব নগর দিবসে গার্ড অব অনার প্রদান করার ক্ষমতা অর্পন করেছেন। যা আনসার বাহিনীর জন্য একটি বিরল সম্মান সুচক মাইল ফলক। ৭১’র পরবর্তী কালে আনসার বাহিনীর কর্মকান্ডের পরিধি সম্প্রসারণে জন-নিরাপত্তার পাশাপাশি দেশ ও জাতির উন্নয়ন সম্ভাবনায় ১৯৭৬ সালের ৫ই জানুয়ারী গ্রাম প্রতিরক্ষা দল ভিডিপি প্রতিষ্ঠা লাভ করে, যার পূর্ণাঙ্গ নাম করণ আনসার ও গ্রাম প্রতিরক্ষা বাহিনী করা হয়।


বাংলাদেশের গ্রামীণ জনগোষ্ঠী ভিত্তিক প্রশিক্ষণ ধর্মী বৃহৎ স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন আনসার ও গ্রাম প্রতিরক্ষা দল-সবুজ শ্যামল বাংলার শান্তি, শৃঙ্খলা রক্তিম বাংলাদেশে স্বাধীনতা সার্বভৌমত্ব রক্ষায় প্রশংসনীয় ভূমিকা রাখায় সর্বোচ্চ সম্মানের স্বীকৃতি স্বরূপ ১৯৯৫ সালে গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশের সংবিধানের ১৫২ অনুচ্ছেদে ‘‘শৃঙ্খলা বাহিনী’’ হিসাবে মর্যাদা প্রদান করা হয়। বাহিনীর কর্ম-তৎপরতায় আইন শৃঙ্খলা রক্ষায় সরকার আনসার-ভিডিপিকে স্থানীয় সরকার আইন-২০০৯ এ স্থানীয় আইন প্রয়োগকারী সংস্থা হিসাবে ক্ষমতা প্রদান করেছেন। বাংলাদেশের অর্থনৈতিক ও সামাজিক মর্যাদা উন্নয়নের লক্ষ্যে এই সংগঠনের সদস্যদের যুগোপযোগী প্রশিক্ষণ প্রদান এবং দক্ষতা বৃদ্ধিতে প্রশিক্ষণ নীতিমালা ও দিক-নির্দেশনায় প্রশিক্ষণকে বিভিন্ন কোডে ভাগ করে সফল ভাবে কর্মসূচী বাস্তবায়ন করা হয়। আনসার ভিডিপি’র প্রশিক্ষণ নীতিমালার আওতায় বাহিনীর মাঠ পর্যায় থেকে শুরু করে একাডেমী পর্যন্ত সদস্য, কর্মচারী কর্মকর্তাদের অধিক দক্ষতা বৃদ্ধি মূলক প্রশিক্ষণ প্রদান করে বাহিনীর সাংগঠনিক কার্যক্রম গতিশীল করতে একটি পরিপক্ক উন্নয়ন ও জন-নিরাপত্তাময় বাহিনী হিসাবে নিজেদের গড়ে উঠেছে আনসার ও ভিডিপি। নভেম্বর-২০১৩ হতে জানুয়ারী-২০১৫ ও পরবর্তী সময় গুলোতে জামাত-বিএনপি’র সহিংসতায় দেশের বৃহৎ সম্পদ রেল, নৌ-দুরপাল¬ার বাস, জন দুর্ভোগ এবং জান-মালের নিরাপত্তা নিশ্চিত করনে আনসার ও গ্রাম প্রতিরক্ষা বাহিনী সক্রিয় ভূমিকা পালন করে দেশ ও জাতিকে সু-শৃঙ্খল পরিবেশ উপহার দিয়েছেন। শুধু তাই নয়, দশম ও একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে আইন শৃঙ্খলা রক্ষায় অধিক ঝুঁকি নিয়ে আনসার-ভিডিপি সদস্যরা দায়িত্ব পালন করেছেন। সরকারের মেরুদন্ড আনসার ও ভিডিপি কে আধুনিকায়নে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় সংক্রান্ত নীতি-নির্ধারণী মহলকে অধিক গুরুত্ব দিয়ে সম্ভাবনাময় এই বাহিনীকে যুগোপযোগি করে গড়ে তোলা প্রয়োজন।


অনুসন্ধানে দেখাযায়, অর্থনৈতিক ভাবে এখনও পিছিয়ে পড়েছে একটি অংশ ইউনিয়ন ভিডিপি দলনেতা নেত্রীদের পরিবার, তাদের আত্ম-সামাজিক উন্নয়ন ও জীবিকায়নের উন্নতি হয়নি। ইউনিয়ন দলনেতা-নেত্রীদের পরিবারে ঈদের আনন্দ বা পূজার আমেজ এখন স্বপ্নে, বাস্তবের সাথে সমাজের অন্যান্যদের মতো করে স্বাভাবিক স্বচ্ছলতায় চলা তাদের হয়ে উঠে না। সম্মানের আসনে অধিষ্ঠিত ভিডিপি দলনেতা-নেত্রীরা বুকে অধিক তীব্র কষ্ট চেপে রেখে রাষ্ট্রীয় তথা সরকার প্রদত্ত দায়িত্ব নিরলস ভাবে পালন করে যাচ্ছেন এবং মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনার অভাবনীয় উন্নয়ন সাফল্য জনগনের দোর-গোড়ায় প্রচার মাধ্যমের কাজ করছেন এই অবহেলিত ভিডিপি দলনেতা-নেত্রীরা।


নাম প্রকাশ না করার শর্তে বাহিনীর একজন উর্দ্ধতন কর্মকর্তা বলেন, ভিডিপি ইউনিয়ন দলনেতা-নেত্রীরা সরকার প্রদত্ত মাসে কমপক্ষে ১৫ কর্ম দিবস দায়িত্ব সঠিক ভাবে পালন করার পর যৎ-সামান্য সম্মানী ভাতা প্রদান করা হয়। তখন আমরা নিজেরাও অনেকটা কষ্টবোধ করে থাকি, যা প্রকাশ করতে নিজেকে লজ্জাবোধ করতে হয়। তারা আরও জানান, বাহিনীর মাঠ পর্যায়ে ভিডিপি ইউনিয়ন দলনেতা-নেত্রীরা সাংগঠনিক কর্মকান্ডের গতিশীলতায় অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে থাকেন, সরকার তাদের পালনীয় দায়িত্বের প্রতি সম্মান দেখিয়ে মাসিক সম্মানী ভাতা প্রদান করছেন।
সরকারের অতি গুরুত্বপূর্ণ সহায়ক বাহিনী আনসার ও ভিডিপিকে আরো ব্যাপক ভাবে অগ্রগামী করতে হলে ইউনিয়ন ভিডিপি দলনেতা-নেত্রীদের জীবাকায়নের উন্নতি সাধন করা বাঞ্চনীয়। দেশের অন্যান্য বাহিনীর ন্যায় বৈষম্য দূর করে সমতা এনে প্রতীয়মান সমস্যা-সমাধানে কার্যকর পরিকল্পনা গ্রহণ ও বাস্তবায়নে যুগোপযোগী ব্যবস্থা গ্রহণ অতীবও জরুরী বলে মনে করছেন অবসরে থাকা বাহিনীর অভিজ্ঞ উর্দ্ধতন কর্মকর্তারা।


সিরাজগঞ্জ জেলা আনসার ও ভিডিপি কমান্ড্যান্ট মির্জা সিফাত-ই-খোদা জানান, আনসার ও ভিডিপি আধুনিকায়নে বর্তমান সরকার বদ্ধ পরিকর ও আন্তরিক, বাহিনীর সমস্যান্বিত দিকগুলো সমাধানে অধিক গুরুত্ব দিয়ে সরকার ভাবছেন। তিনি আশা ব্যক্ত করে বলেন, ইউনিয়ন ভিডিপি দলনেতা-নেত্রীদের সম্মানী ভাতা বৃদ্ধি করার বিষয়টি নিয়ে বাহিনীর উর্ধ্বতন কর্মকর্তা এবং মন্ত্রনালয়ের আলোচনা চলছে। ভিডিপি ইউনিয়ন দলনেতা-নেত্রীদের ভাতা বৃদ্ধির বিষয়টি সরকার অধিক গুরুত্ব সহকারে দেখছেন। সুযোগ সুবিধা বৃদ্ধির বিষয়টি বাহিনীর নীতি-নির্ধারণী মহলের আমলে রয়েছে।


বাংলাদেশ আনসার ও গ্রাম প্রতিরক্ষা বাহিনীর রংপুর রেঞ্জের পরিচালক একেএম জিয়াউল আলম জানান,আনসার ও ভিডিপি’র ইউনিয়ন দলনেতা-নেত্রীরা দেশ প্রেমিক হিসেবে সামাজিক উন্নয়ন ও শান্তি শৃংখলা রক্ষায় নিরলস ভাবে দায়িত্ব পালন করছেন। বর্তমান সরকারের গৃহীত পদক্ষেপে আনসার ও ভিডিপির প্রতিটি ক্ষেত্রে অভাবনীয় সাফল্যে অর্জিত হয়েছে। ভিডিপি ইউনিয়ন দলনেতা-নেত্রীদের জীবন মান উন্নয়নে সরকারের নীতি-নির্ধারনী মহল গুরুত্বসহকারে মানবিক বিষয়টি দেখছেন।
বাংলাদেশ আনসার ও গ্রাম প্রতিরক্ষা বাহিনীর সদর দফতরের পরিচালক প্রশাসন (কিউ) মুহাম্মদ সাজ্জাদুর রহমান বলেন,মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সরকার আনসার ও ভিডিপি’র উন্নয়নে ব্যাপক সাফল্যে এনেছেন। আনসার-ভিডিপি’র সদর দফতর হতে একাডেমী ও মাঠ প্রশাসনের কর্মকর্তাসহ সদস্য-সদস্যারা উন্নয়ন এবং জন-নিরাপত্ততায় নিরলস ভাবে দায়িত্ব পালনের মাধ্যমে জন আস্থা অর্জনে সক্ষম হয়েছে। তিনি আরও বলেন, বাহিনীর মহা-পরিচালক মেজর জেনারেল কাজী শরীফ কায়কোবাদ এনডিসি,পিএসসি-জি মহোদয়ের দিক-নির্দেশনা ও দক্ষ ব্যবস্থাপনায় আনসার ও ভিডিপি’র সকল স্তরের কর্মকর্তা-কর্মচারী ও সদস্য-সদস্যারা বাহিনীর প্রদত্ত দায়িত্ব আন্তরিকতার সাথে পালনের মধ্যদিয়ে জন কাঙ্খিত প্রত্যাশার প্রতিফলন স্থাপন করছেন।



সংবাদটি পড়া হয়েছে মোট : 6785        
   শেয়ার করুন
Share Button
   আপনার মতামত দিন
     সারা বাংলা
লক্ষ্মীপুরে স্ত্রী হত্যায় স্বামীর যাবজ্জীবন কারাদন্ড
.............................................................................................
শাহজাদপুর পৌরসভার শেরখালীতে মতবিনিময় করে মেয়র পদে নির্বাচনের ঘোষণা দিলেন যুবদল নেতা সজল
.............................................................................................
এমসি কলেজে ধর্ষণ মামলার প্রধান আসামি সাইফুর গ্রেপ্তার
.............................................................................................
কুষ্টিয়ায় ভ্রাম্যমাণ আদালতের অভিযান
.............................................................................................
শাহজাদপুরে এমপির নাম ব্যবহার করে সরকারি জায়গা দখল করে পাকা মার্কেট নির্মাণ
.............................................................................................
টাঙ্গাইলে তিন পেঁয়াজ ব্যবসায়ীকে জরিমানা
.............................................................................................
উদীয়মান ফুটবলার শৈলকন্যা উন্নতিকে প্রধানমন্ত্রীর সহায়তা
.............................................................................................
কুমারখালী পৌরসভার বিনামূল্যে সোলার প্যানেল বিতরণ
.............................................................................................
দাগনভূঞায় স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স পরিদর্শনে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের মহাপরিচালক
.............................................................................................
ইউএনও ওয়াহিদার ওপর হামলাকারীদের শাস্তির দাবিতে মানববন্ধন
.............................................................................................
দিনাজপুর জেলা আইনজীবী সমিতির নব-নির্বাচিত কার্য নির্বাহী কমিটির শপথ ও দায়িত্ব গ্রহণ অনুষ্ঠান
.............................................................................................
কোভিড-১৯ মোকাবেলায় কুমারখালীতে সাংবাদিকদের নিয়ে ফ্রেন্ডশিপের মতবিনিময় সভা
.............................................................................................
শরীয়তপুরে ৩ প্রতিষ্ঠানকে প্রশাসনিক জরিমানা
.............................................................................................
দীঘিনালায় মুক্তিযোদ্ধা সংসদ সন্তান কমান্ডের মানববন্ধন
.............................................................................................
কুষ্টিয়া জেলা ক্রীড়া উন্নয়ন পরিষদের পূর্ণ প্যানেলে জয়লাভ
.............................................................................................
৬৩ হাজার যাত্রীর জন্য হাত ধোয়ার উপকরণ
.............................................................................................
মোংলায় ভাসমান হাসপাতাল জীবন খেয়া
.............................................................................................
পৌরসভার উদ্যোগে মাস্ক বিতরণ
.............................................................................................
ফুটপাতে ব্যবসা
.............................................................................................
ভোগান্তি কমছে না নিম্নাঞ্চলে বসবাসরতদের
.............................................................................................
সিনহা হত্যা: র‌্যাবের রিমান্ডে এপিবিএনের ৩ সদস্য
.............................................................................................
কালকিনিতে র‌্যাবের হাতে দুই মাদক ব্যবসায়ী আটক
.............................................................................................
মির্জাগঞ্জে নদীর পানি বৃদ্ধির ফলে বাজারসহ নিম্নাঞ্চল প্লাবিত
.............................................................................................
গাইবান্ধায় নিলাম স্থগিত করণের দাবীতে মানববন্ধন
.............................................................................................
পঞ্চগড়ে জেলা পরিষদ চত্বরে বঙ্গবন্ধু’র নবনির্মিত ম্যুরাল উদ্বোধন
.............................................................................................
জনগণের কাজে আসছে না গোবিন্দগঞ্জে আশ্রয়ণ ও গুচ্ছগ্রাম প্রকল্প
.............................................................................................
সিনহা হত্যায় তদন্ত কমিটির গণশুনানি শুরু
.............................................................................................
জলঢাকায় ব্যারিস্টার তুরিন আফরোজ ফাউন্ডেশনের সংবাদ সম্মেলন
.............................................................................................
বাঁকখালী নদীর ভয়াবহ ভাঙনে হুমকিতে সড়ক ও জনবসতি
.............................................................................................
সাঁওতাল হত্যা মামলার আসামীদের বিচার দাবি
.............................................................................................
সালথায় বন্যায় ক্ষতিগ্রস্তদের মাঝে ত্রাণ বিতরণ
.............................................................................................
ডিমলায় চালককে অচেতন করে অটোবাইক নিয়ে পালানোর সময় নারী সহ আটক ৩
.............................................................................................
করোনাকে জয় করে দেশকে এগিয়ে নিতে হবে: সাংগঠনিক সম্পাদক শফিক
.............................................................................................
মাশরাফির বাবা-মা সহ পরিবারের ৪ জন করোনায় আক্রান্ত
.............................................................................................
জয়পুরহাটে অবহেলায় মাটিতে লুটাচ্ছে চামড়া!
.............................................................................................
মির্জাগঞ্জে আ.লীগের অফিস ভাংচুর, আটক- ৩
.............................................................................................
বাড়ি ফেরা হলো না প্রবাসীসহ পরিবারের ৩ জনের
.............................................................................................
১ লাখ ৩০ হাজার ইয়াবা ফেলে পালাল পাচারকারীরা
.............................................................................................
লৌহজংয়ে বানভাসিদের পাশে যুবলীগ
.............................................................................................
দীর্ঘ মেয়াদী বন্যায় দিশেহারা রাজবাড়ীর বানভাসী মানুষ
.............................................................................................
সাগরে ঝাঁপ দিয়ে নিখোঁজ ২৪ রোহিঙ্গা, মৃত্যুর শঙ্কা
.............................................................................................
১০ ভিক্ষুককে মুরগির খামার তৈরি করে দিলেন উপজেলা প্রশাসন তাড়াশ
.............................................................................................
আলফাডাঙ্গায় অবৈধ কারেন্ট জালে মা মাছ ও পোনা নিধন
.............................................................................................
বঙ্গবন্ধু সেতু দিয়ে ৯ ঘণ্টা পর ট্রেন চলাচল শুরু
.............................................................................................
কোরবানির গরু বিক্রি করতে না পেরে হতাশ খামারিরা
.............................................................................................
বাংলাদেশের ২৪ লাখ মানুষ বন্যায় ক্ষতিগ্রস্ত ও ১৩ লাখ শিশু ঝুঁকিতে
.............................................................................................
মাদারীপুরে পদ্মায় বিলীন চরাঞ্চলের বাতিঘর
.............................................................................................
জনসচেতনতায় লিফলেট বিতরণ করলেন মেয়র আলহাজ্ব সামছুজ্জামান অরুন
.............................................................................................
ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় ছয় মাসে ৩৮ সংঘর্ষে ২৬ খুন
.............................................................................................
`২০০ টাকার জন্য` একই পরিবারের চারজন খুন
.............................................................................................
Digital Truck Scale | Platform Scale | Weighing Bridge Scale
Digital Load Cell
Digital Indicator
Digital Score Board
Junction Box | Chequer Plate | Girder
Digital Scale | Digital Floor Scale

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি : মো: রিপন তরফদার নিয়াম
প্রতিষ্ঠাতা সম্পাদক : মফিজুর রহমান রোকন
নির্বাহী সম্পাদক : শাহাদাত হোসেন শাহীন
বাণিজ্যিক কার্যালয় : "রহমানিয়া ইন্টারন্যাশনাল কমপ্লেক্স"
(৬ষ্ঠ তলা), ২৮/১ সি, টয়েনবি সার্কুলার রোড,
মতিঝিল বা/এ ঢাকা-১০০০| জিপিও বক্স নং-৫৪৭, ঢাকা
ফোন নাম্বার : ০২-৪৭১২০৮০৫/৬, ০২-৯৫৮৭৮৫০
মোবাইল : ০১৭০৭-০৮৯৫৫৩, 01731800427
E-mail: dailyganomukti@gmail.com
Website : http://www.dailyganomukti.com
   © সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত । এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি Dynamic Solution IT & Dynamic Scale BD