| বাংলার জন্য ক্লিক করুন
  
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
শিরোনাম : > বান্দরবানে আওয়ামীলীগের বিক্ষোভ সমাবেশ   > একজন বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবের জন্ম না হলে বাংলাদেশের জন্ম হতো না -এমপি   > বইমেলায় দৈনিক গণমুক্তির কলামিস্ট আসাদুজ্জামান জুয়েলের দুটি বই   > ভূঞাপুরে এতিম খানার উদ্যোগে ওয়াজ মাহফিল   > রৌমারীতে অবৈধভাবে বালু উত্তোলন বন্ধ   > বাউফলে চন্দ্রদ্বীপ ইউনিয়ন পরিদর্শনে ইউএনও   > হোসেনপুরে জমি নিয়ে মুখোমুখি সংঘর্ষ, আহত ৩   > আশুলিয়ায় ৪শ বোতল ফেনসিডিলসহ আটক ২,   > পানছড়িতে ১ কেজি গাঁজা সহ ব্যবসায়ী আটক   > জলঢাকায় সড়ক দূর্ঘটনায় নিহত-১, আহত-৩  

   ফিচার
  সুনামগঞ্জের পাখির গ্রাম মুরাদপুর
  Publish Time : 7 February 2020, 11:02:59:PM

রুজেল আহমদ, সুনামগঞ্জ প্রতিনিধি : এত পাখি, এত কিচির মিচির শব্দ আদিকালে দেখেনি মুরাদপুর গ্রামবাসী। হাওর বেষ্টিত বৃহৎ এ পল্লীটি জেলার দক্ষিণ সুনামগঞ্জ উপজেলার শিমুলবাক ইউনিয়নে অবস্থিত। গ্রামটি উপজেলা সদর থেকে ২০ কি: মিটার দুরে। এদিকে মুরাদপুর গ্রাম থেকে ৮ কি: মিটার দুরে দিরাই উপজেলার ভাটিপাড়া জমিদার বাড়ি। এছাড়া চারদিকে নয়নাভিরাম হাওর আর হাওর। বর্ষায় থৈ থৈ জলের ঢেউ। বসন্তে বাসন্তী হাওয়া। এখানে এসে বাড়তি আনন্দ দিতে যোগ হয়েছে পাখি আর পাখি। এ যেন এক স্বর্গীয় অনুভুতি। যে কারো মনে মুগ্ধতা আনে। দিন দিন পর্যটকদের জন্য বড়ই আকর্ষণীয় হয়ে উঠেছে এলাকাটি। তবে রাস্তাঘাট সহ অবকাঠামোগত উন্নয়নে আধুনিকতার ছোঁয়া না লাগায় কেউ জানে না এ গ্রামে হাজার হাজার পাখির অভয়ারণ্য গড়ে উঠেছে। গাছে গাছে, বাঁশ ঝাড়ে ঝাড়ে পাখির কিচির মিচির শব্দে গড়ে উঠা গ্রামটিকে জাতীয়ভাবে পর্যটন কেন্দ্র ঘোষণার দাবি স্থানীয়দের। সরজমিনে গিয়ে গ্রামবাসীর সাথে কথা বলে জানা যায়, গত বছর নানা প্রজাতির পাখি গ্রামে গাছের ডালে বাঁশঝাড়ে আসতে শুরু করে। এ বছর এত পাখি এখানে এসে আশ্রয় নিয়েছে যে লাখো ছাড়িয়ে যাবে। পাখির ভাড়ে ডাল ভাঙ্গে। এত পাখি এখানে এমনভাবে বসতি স্থাপন করেছে যেন তাদের বাড়ি এটি। তাই লোকে লোকে গ্রামটিকে এখন পাখির গ্রাম হিসেবেই ডাকতে শুরু করেছে। নানা প্রজাতির পাখিদের মধ্যে রয়েছে, পানকোঁড়ি, সাদা বক, পরালি, ঘুঘু, চুড়ই, ধনেশ, সারশসহ অসংখ্য পাখি। এসব পাখিরা কালিকোটা হাওর, ছায়ার হাওরসহ বিভিন্ন ছোট ছোট হাওরে সারাদিন আহার জোটায়। সুর্য ডুবার আগেই ঝাঁকে ঝাঁকে আকাশে উড়ে উড়ে মুরাদপুর গ্রামে ফিরতে শুরু করে। গ্রামের চারপাশের হাওর থেকে হাজার হাজার পাখি ডানা ঝাপটিয়ে যখন গ্রামের আকাশে এসে পেখম মেলে অবস্থান করে তখন এক অভূতপূর্ব দৃশ্যের অবতরণা হয়। পাখির কিচির মিচির শব্দ, ডানা ঝাপটানোর শব্দ, দলবেঁধে সারিসারি দৃশ্য যেন আনন্দের মেঘ বর্ষিত হয় লোকে লোকে। এ দৃশ্য উপভোগ করতে গ্রামের শিশু, কিশোর, যুবক, বৃদ্ধ নর-নারী প্রতিদিন গ্রামের বাড়ির উঠোনে, রাস্তার ধারে, স্কুল আঙ্গিনায় দাঁড়িয়ে থাকেন। আবার ভোর হলেই পাখিরা গ্রাম ছেড়ে আহারের সন্ধানে হাওরে বাওরে ছুটে বেড়ায়। তখন প্রাণে প্রাণে স্পন্দিত হয় গ্রাম। পাখিরা পৌষ মাসে আসে আর বৈশাখ এলেই ফিরে যায় তাদের গন্তব্যে। এখানে পাখিরা এত নিরাপদ কেন জানতে চাইলে চমৎকার তথ্য পাওয়া যায়। গ্রামবাসী পাখিকে জাতীয় সম্পদ মনে করে সংরক্ষনের জন্য পাখি শিকারীদের উপর ১০ হাজার টাকা জারিমানার বিধান করেছেন। এমনকি ঢিল ছু’ড়ে বিরক্ত করলেও একই জরিমানার বিধান বহাল রেখেছেন তারা। তাই এ গ্রামে পাখি ডুকা মানে শতভাগ নিরাপদ। এ গ্রামে সব বয়সী নারী পুরুষরা আপন সন্তানের মতো আগলে রাখেন পাখিদের। তবে পখির বিষ্টা এমন পর্যায়ে উপনীত হয়েছে যে, বাড়ি ঘর, রাস্তা-ঘাট, দুর্গন্ধ লেগেই আছে। গ্রামবাসী এ দুর্গন্ধ সইতে পারলেও বিষ্টা দুরকরণের উপায় খোঁজছেন। এছাড়া এখানে নেই কোন পর্যটকদের বসার স্থান। ভাটি অঞ্চল হওয়ায় পাখির মেলা দেখা বড়ই মুশকিল। তাই পাখির বিষ্টা পরিস্কারসহ অবকাঠামোগত উন্নয়নের দাবি জানান স্থানীয়রা। গ্রামের মুরুব্বি সানজব আলী, হারুন মিয়া জানান, পাখি আমাদের জাতীয় সম্পদ। এ সম্পদ নিরাপদ রাখতে আমরা গ্রামবাসী কেউ পাখি শিকার করলে কিংবা বিরক্ত করলে ১০ হাজার টাকা জরিমানা বিধান রাখা হয়েছে। আমরা চাই পাখির এই অভয়ারণ্যকে জাতীয় ভাবে পর্যটন কেন্দ্র ঘোষণা করা হোক। ইউনিয়ন চেয়ারম্যান মিজানুর রহমান জিতু জানান, মুরাদপুর এখন পাখির গ্রাম। পাখির এই গ্রামকে ঘিরে হতে পারে একটি পর্যটন কেন্দ্র। আমি রাস্তা-ঘাটের অবকাঠামোগত উন্নয়নসহ পর্যটন কেন্দ্র গড়ে তোলার জন্য পরিকল্পনামন্ত্রীর সাথে কথা বলব। এমন ভাবে পর্যটনকেন্দ্র গড়ে তুলতে চাই যেন দেশ-বিদেশ থেকে পর্যটকরা এসে আনন্দের সাথে পাখিদের এ মেলা উপভোগ করতে পারে। দক্ষিণ সুনামগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা জেবুন নাহার শাম্মী বলেন, সংবাদটি শুনে খুশী হলাম। আমি মুরাদপুর গ্রামের পাখির এ দৃশ্য অবলোকন করতে যাব। পাখিকে ঘিরে যদি পর্যটন গড়ে তোলার মতো পরিবেশ চোখে পড়ে অবশ্যই আমি ভাটি অঞ্চলের এ গ্রামে পর্যটন কেন্দ্র গড়ে তোলার চেষ্টা করব।


 



সংবাদটি পড়া হয়েছে মোট : 17        
   শেয়ার করুন
Share Button
   আপনার মতামত দিন
     ফিচার
সাহেবের আলগা হতে দাঁতভাংগা পর্যন্ত রাস্তাটির বেহালদশা
.............................................................................................
সুনামগঞ্জের পাখির গ্রাম মুরাদপুর
.............................................................................................
প্রায় ৮ হাজার নারী-পুরুষের কর্মসংস্থান
.............................................................................................
বঙ্গবন্ধু’র আদর্শকে ধারণ করে চলছেন আবদুল খালেক
.............................................................................................
ডেপুটেশনের ফাঁদে ধ্বংস হচ্ছে কুড়িগ্রামের প্রাথমিক শিক্ষা ব্যবস্থা
.............................................................................................
আধুনিকতার ছোঁয়ায় বিলুপ্তির পথে আত্রাইয়ে মাটির ঘর
.............................................................................................
নারী জাগরনের অগ্রদূত -বেগম রোকেয়া
.............................................................................................
অসহায় মানুষের জীবনে দ্বীপ জ্বালাতে চান রেশমা জাহান
.............................................................................................
লাখো ভক্তের স্বপ্নসারথী ইকবাল হোসেন অপু প্রকৃত অর্থেই একজন জননেতা
.............................................................................................
“নারীবাদ নাকি সমকামিতা, কোন পথে আমরা”
.............................................................................................
কি ঘটে জানুয়ারির প্রথম সোমবারে?
.............................................................................................
নারী পুরুষের ১০টি মানসিক পার্থক্য
.............................................................................................
শিশুর যত সুন্দর নাম
.............................................................................................
সৌভাগ্যের জন্য গুরুত্বপূর্ণ যে চারটি বিষয়
.............................................................................................
মানসিক সমস্যা সারিয়ে তুলতে পারেন দাদা-দাদি
.............................................................................................
যে গ্রামে পুরুষ প্রবেশ নিষেধ
.............................................................................................
স্বাধীন ভারতের বীরপুত্র
.............................................................................................
বিশ্বের সবচেয়ে প্রাচীন খাবারের সন্ধান
.............................................................................................
৩৬২ কোটি টাকা এক খণ্ড হিরের দাম
.............................................................................................
কুকুর শনাক্ত করবে ম্যালেরিয়া রোগ
.............................................................................................
হঠাৎই হারিয়ে গেল জাপানের আস্ত একটি দ্বীপ!
.............................................................................................
৪০০ কোটি বছরেরও পুরোনো গোমেদ পাথর!
.............................................................................................
যে কারণে সুইসাইড স্পট হয়ে ওঠে এই স্টার হোটেলটি
.............................................................................................
আমার শরীরটা পুরুষের ছিল, কিন্তু মনটা ছিল নারীর
.............................................................................................
এই পান্নার দাম ১৫ কোটি টাকা!
.............................................................................................
অসাধারণ জীবনীশক্তি মিঠা পানির জেলিফিশের
.............................................................................................
দাবানল ঠেকাবে ছাগল বিগ্রেড
.............................................................................................
নিজের স্বরের এই ৭ তথ্য আপনি জানেন কি?
.............................................................................................
পাঁচ মাস বয়সেই যুক্তরাষ্ট্রের ৫০ অঙ্গরাজ্য ভ্রমণ
.............................................................................................
বিশ্বের উষ্ণতা কমানোর ৫ উপায়
.............................................................................................
ভারতের যেসব মন্দিরে নারীদের প্রবেশ নিষেধ
.............................................................................................
চুল শুকাতে সোনার হেয়ার ড্রায়ার!
.............................................................................................
১৯ বছর ধরে যে শহরে চলে না গাড়ি
.............................................................................................
বরফের নিচে আশ্চর্য শহর
.............................................................................................
মোগলাই খাবার এত স্পাইসি হয় কেন?
.............................................................................................
সেতুও আবার রোলার কোস্টার হয় নাকি
.............................................................................................
ভিনদেশি ঐতিহ্যবাহী মিষ্টান্ন
.............................................................................................
আমার বর্ষাকাল
.............................................................................................
খালি পায়ে চলি
.............................................................................................
আর মাত্র ১২ দিন বাকি
.............................................................................................
মুক্তি পেল ‘সাঞ্জু’র নতুন গান
.............................................................................................
দুই তরমুজ প্রায় ২৫ লাখ!
.............................................................................................
যৌন-আসক্তিকে কি এক কাতারে ফেলা যায়
.............................................................................................
অনিয়মিত পিরিয়ডের কারণ ও করণীয়
.............................................................................................
যে কফিশপের কর্মীরা সবাই প্রতিবন্ধী
.............................................................................................
গান শুনলে মন ভালো হয়
.............................................................................................
চাকরি পাওয়ার সঠিক এবং সহজ উপায়
.............................................................................................
স্মর্টফোন মানুষের জীবনে দিনে দিনে উদ্বেগ অস্থিরতা বৃদ্ধি করছে
.............................................................................................
চাকরির জন্য সাক্ষাৎকারের প্রস্তুতি নিতে হবে যে ৭ বিষয়
.............................................................................................
টিভি দেখলে শিশুদের সৃজনশীলতা কমে যায়
.............................................................................................

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি : মো: রিপন তরফদার নিয়াম ।
প্রতিষ্ঠাতা সম্পাদক : মফিজুর রহমান রোকন ।
নির্বাহী সম্পাদক : শাহাদাত হোসেন শাহীন ।

সম্পাদক কর্তৃক শরীয়তপুর প্রিন্টিং প্রেস, ২৩৪ ফকিরাপুল, ঢাকা থেকে মুদ্রিত ও প্রকাশিত । সম্পাদকীয় ও বাণিজ্যিক কার্যালয় : রহমানিয়া ইন্টারন্যাশনাল কমপ্ল্যাক্স (৬ষ্ঠ তলা) । ২৮/১ সি টয়েনবি সার্কুলার রোড, মতিঝিল, বা/এ ঢাকা-১০০০ । জিপিও বক্স নং-৫৪৭, ঢাকা ।
ফোন নাম্বার : ০২-৯৫৮৭৮৫০, ০২-৫৭১৬০৪০৪
মোবাইল : ০১৭০৭-০৮৯৫৫৩, ০১৯১৬৮২২৫৬৬ ।

E-mail: dailyganomukti@gmail.com
   © সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত । এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি