ঢাকা ০৩:৫২ পূর্বাহ্ন, শনিবার, ২৫ মে ২০২৪

কপোতাক্ষ ট্রেনে নতুন অতিথি

প্রতিনিধির নাম
  • আপডেট সময় : ০৬:২৩:০৭ অপরাহ্ন, সোমবার, ৮ এপ্রিল ২০২৪ ১৪০ বার পড়া হয়েছে
দৈনিক গনমুক্তি অনলাইনের সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি

 

ঝিনাইদহের স্বর্ণা খাতুন কপোতাক্ষ প্রক্সপ্রেসে রাজশাহী যাবার পথে ট্রেনের কামরায় পুত্র সন্ত্রান জন্ম দিয়েছেন। ট্রেনে নবাগত অতিথিকে ঘিরে আনন্দ ছড়িয়ে পড়ে কপোতাক্ষ এক্সপ্রেসে।

কপোতাক্ষ এক্সপ্রেসের পরিচালক (গার্ড) ইলিয়াস কবীর সংবাদমাধ্যমকে জানান, সোমবার (৮এপ্রিল) খুলনা থেকে রাজশাহীগামী আন্তঃনগর কপোতাক্ষ এক্সপ্রেস ট্রেনটি সকালে খুলনা থেকে ছেড়ে আসে। সোয়া ৯টার নাগাদ দর্শনা রেলস্টেশন থেকে স্বর্ণা খাতুন পরিবারসহ ‘ঙ’ বগিতে ওঠেন। ট্রেনটি ভেড়ামারা রেলস্টেশনে এলে নারীর প্রসব বেদনা শুরু হয়।

তাৎক্ষণিকভাবে ট্রেনে কোনো চিকিৎসক রয়েছেন কি না জানতে ঘোষণা করা হয়। এসময় ঢাকার বেসরকারি এক হাসপাতালের নবজাতক ও শিশু বিশেষজ্ঞ ডা. নাজনীন আক্তার দ্রুত ‘ঙ’ আসেন এবং তার সহযোগিতায় বেলা ১১টা ৪০ মিনিটে ছেলে সন্তান জন্ম দেন স্বর্ণ খাতুন।

স্বর্ণা খাতুনের স্বামীর নাম ইয়াসিন আরাফাত। বাড়ি ঝিনাইদহের মহেশপুর উপজেলার পান্তাপাড়া ইউনিয়নের হুগরি পান্তাপাড়া গ্রামের।

পাকশী বিভাগীয় রেলওয়ের ব্যবস্থাপক (ডিআরএম) শাহ সুফী নুর মোহাম্মদ, ট্রেনটি রাজশাহী স্টেশনে পৌঁছানোর পর রেলওয়ের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাদের সহযোগিতায় উন্নত চিকিৎসার জন্য রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল পাঠানো হয়েছে। বর্তমানে মা ও শিশু সুস্থ আছেন।

নিউজটি শেয়ার করুন

ট্যাগস :

কপোতাক্ষ ট্রেনে নতুন অতিথি

আপডেট সময় : ০৬:২৩:০৭ অপরাহ্ন, সোমবার, ৮ এপ্রিল ২০২৪

 

ঝিনাইদহের স্বর্ণা খাতুন কপোতাক্ষ প্রক্সপ্রেসে রাজশাহী যাবার পথে ট্রেনের কামরায় পুত্র সন্ত্রান জন্ম দিয়েছেন। ট্রেনে নবাগত অতিথিকে ঘিরে আনন্দ ছড়িয়ে পড়ে কপোতাক্ষ এক্সপ্রেসে।

কপোতাক্ষ এক্সপ্রেসের পরিচালক (গার্ড) ইলিয়াস কবীর সংবাদমাধ্যমকে জানান, সোমবার (৮এপ্রিল) খুলনা থেকে রাজশাহীগামী আন্তঃনগর কপোতাক্ষ এক্সপ্রেস ট্রেনটি সকালে খুলনা থেকে ছেড়ে আসে। সোয়া ৯টার নাগাদ দর্শনা রেলস্টেশন থেকে স্বর্ণা খাতুন পরিবারসহ ‘ঙ’ বগিতে ওঠেন। ট্রেনটি ভেড়ামারা রেলস্টেশনে এলে নারীর প্রসব বেদনা শুরু হয়।

তাৎক্ষণিকভাবে ট্রেনে কোনো চিকিৎসক রয়েছেন কি না জানতে ঘোষণা করা হয়। এসময় ঢাকার বেসরকারি এক হাসপাতালের নবজাতক ও শিশু বিশেষজ্ঞ ডা. নাজনীন আক্তার দ্রুত ‘ঙ’ আসেন এবং তার সহযোগিতায় বেলা ১১টা ৪০ মিনিটে ছেলে সন্তান জন্ম দেন স্বর্ণ খাতুন।

স্বর্ণা খাতুনের স্বামীর নাম ইয়াসিন আরাফাত। বাড়ি ঝিনাইদহের মহেশপুর উপজেলার পান্তাপাড়া ইউনিয়নের হুগরি পান্তাপাড়া গ্রামের।

পাকশী বিভাগীয় রেলওয়ের ব্যবস্থাপক (ডিআরএম) শাহ সুফী নুর মোহাম্মদ, ট্রেনটি রাজশাহী স্টেশনে পৌঁছানোর পর রেলওয়ের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাদের সহযোগিতায় উন্নত চিকিৎসার জন্য রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল পাঠানো হয়েছে। বর্তমানে মা ও শিশু সুস্থ আছেন।