ঢাকা ০৩:০৫ অপরাহ্ন, বুধবার, ২৪ জুলাই ২০২৪

তীব্র তাপপ্রবাহ: শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান আরও এক সপ্তাহ বন্ধের দাবি অভিভাবকদের

গণমুক্তি রিপোর্ট
  • আপডেট সময় : ০৮:৫১:৩৭ পূর্বাহ্ন, শনিবার, ২০ এপ্রিল ২০২৪ ৯৪ বার পড়া হয়েছে
দৈনিক গনমুক্তি অনলাইনের সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি

 

বাংলাদেশের বিভিন্ন জেলার ওপর দিয়ে বয়ে চলেছে তীব্র তাপপ্রবাহ। জারি করা হয়েছে হিট অ্যালার্ট। এ অবস্থায় প্রয়োজন ছাড়া অনেকেই ঘরের বাইরে পা রাখছে না। প্রশাসনের তরফে সচেতনতামূলক নির্দেশনা রয়েছে, প্রয়োজন ছাড়া ঘরের বাইরে বের না হওয়ার।

এমন পরিস্থিতিতে স্কুল-কলেজ খোলা রাখা হলে অনেক শিশু অসুস্থ হয়ে পড়ার আশঙ্কা রয়েছে। তীব্র তাপপ্রবাহের কারণে দেশের সকল শিক্ষা প্রতিষ্ঠান আরও ৭ দিন বন্ধ রাখার দাবি করছে অভিভাবক ঐক্য ফোরাম।

এরই মধ্যে প্রায় ঘরেই জ্বর-কাশি, গলা ব্যথার মতোর নানা জটিলতায় অনেকেই ভোগছে। কাশি দীর্ঘদিন স্থায়ী হচ্ছে। চিকিৎসকের পরামর্শে এন্টিবায়োটিক খেয়েও অনেকের কাশি নিরাময় হচ্ছে না।

রোজা ও ঈদুল ফিতরসহ পর পর কয়েকটি ছুটির সমন্বয়ে টানা ২৬ দিন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে ছুটি ছিলো। দীর্ঘ ছুটির পর রোববার (২১ এপ্রিল) খুলতে দেশের শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান। এমন এক পরিস্থিতিতে শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে ক্লাশ ঘন্টা বাজতে চলেছে, যখন দেশের অধিকাংশ জেলা ও অঞ্চলের ওপর দিয়ে তীব্র তাপপ্রবাহ বয়ে যাচ্ছে, এবং হিট অ্যালার্ট জারি করেছে প্রশাসন।

এ অবস্থায় শুক্রবার (১৯ এপ্রিল) অভিভাবক ঐক্য ফোরামের সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা মো. জিয়াউল কবির দুলু স্বাক্ষরিত বিজ্ঞপ্তিতে দেশের শিক্ষা প্রতিষ্ঠান আরও ৭দিন বন্ধের দাবি জানান।

নিউজটি শেয়ার করুন

ট্যাগস :

তীব্র তাপপ্রবাহ: শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান আরও এক সপ্তাহ বন্ধের দাবি অভিভাবকদের

আপডেট সময় : ০৮:৫১:৩৭ পূর্বাহ্ন, শনিবার, ২০ এপ্রিল ২০২৪

 

বাংলাদেশের বিভিন্ন জেলার ওপর দিয়ে বয়ে চলেছে তীব্র তাপপ্রবাহ। জারি করা হয়েছে হিট অ্যালার্ট। এ অবস্থায় প্রয়োজন ছাড়া অনেকেই ঘরের বাইরে পা রাখছে না। প্রশাসনের তরফে সচেতনতামূলক নির্দেশনা রয়েছে, প্রয়োজন ছাড়া ঘরের বাইরে বের না হওয়ার।

এমন পরিস্থিতিতে স্কুল-কলেজ খোলা রাখা হলে অনেক শিশু অসুস্থ হয়ে পড়ার আশঙ্কা রয়েছে। তীব্র তাপপ্রবাহের কারণে দেশের সকল শিক্ষা প্রতিষ্ঠান আরও ৭ দিন বন্ধ রাখার দাবি করছে অভিভাবক ঐক্য ফোরাম।

এরই মধ্যে প্রায় ঘরেই জ্বর-কাশি, গলা ব্যথার মতোর নানা জটিলতায় অনেকেই ভোগছে। কাশি দীর্ঘদিন স্থায়ী হচ্ছে। চিকিৎসকের পরামর্শে এন্টিবায়োটিক খেয়েও অনেকের কাশি নিরাময় হচ্ছে না।

রোজা ও ঈদুল ফিতরসহ পর পর কয়েকটি ছুটির সমন্বয়ে টানা ২৬ দিন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে ছুটি ছিলো। দীর্ঘ ছুটির পর রোববার (২১ এপ্রিল) খুলতে দেশের শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান। এমন এক পরিস্থিতিতে শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে ক্লাশ ঘন্টা বাজতে চলেছে, যখন দেশের অধিকাংশ জেলা ও অঞ্চলের ওপর দিয়ে তীব্র তাপপ্রবাহ বয়ে যাচ্ছে, এবং হিট অ্যালার্ট জারি করেছে প্রশাসন।

এ অবস্থায় শুক্রবার (১৯ এপ্রিল) অভিভাবক ঐক্য ফোরামের সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা মো. জিয়াউল কবির দুলু স্বাক্ষরিত বিজ্ঞপ্তিতে দেশের শিক্ষা প্রতিষ্ঠান আরও ৭দিন বন্ধের দাবি জানান।