ঢাকা ১২:১৮ অপরাহ্ন, বুধবার, ১৯ জুন ২০২৪

নাটোরে যুবক হত্যার ঘটনায় উভয় পক্ষের দল নেতা গ্রেপ্তার

স্টাফ রিপোর্টার
  • আপডেট সময় : ০৭:৩৪:৪৯ পূর্বাহ্ন, বুধবার, ১৭ এপ্রিল ২০২৪ ৭৮ বার পড়া হয়েছে
দৈনিক গনমুক্তি অনলাইনের সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি

 

নাটোরে ঠিকাদারি কাজের অর্থের লেনদেন সংক্রান্ত বিষয় নিয়ে কোন্দলের জেরে শিশির হোসেন (২৩) নামের এক যুবককে পৌরসভা চত্বরে শ’ শ’ মানুষের সামনে হিন্দি ফিল্মী স্টাইলে কুপিয়ে হত্যা করা হয়েছে।

দুই পক্ষের বিরোধ মেটাতে পৌর মেয়রের সম্মেলন কক্ষে সালিশি বৈঠক বসার আগেই দুই পক্ষের মাঝে সংঘর্ষ বাধে এবং শিশিরের মৃত্যু ঘটে।

পৌরসভা চত্বরের ভেতরে ৫নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর রোকনুজ্জামান হিরো ও ঠিকাদার হাসানুর রহমান হাসুর গ্রুপের মধ্যে সংঘর্ষ চলাকালে ধারালো অস্ত্র দিয়ে শিশিরকে আঘাত করা হলে নাটোর হাসপাতালে মারা যায়।

এ ঘটনায় দুই পক্ষের দলনেতাকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। জড়িত অন্যান্যদের গ্রেপ্তারে পুলিশ মাঠে থাকার কথা জানান, নাটোর পুলিশ সুপার মো. তারিকুল ইসলাম।


মঙ্গলবারের (১৬ এপ্রিল) এই ঘটনার পর পৌরসভা চত্বরে অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন রয়েছে। স্থানীয়রা জানান, কাউন্সিলর রোকনুজ্জামান হিরো এবং ঠিকাদার ও যুবলীগকর্মী হাসুর মধ্যে টেন্ডার সংক্রান্ত টাকা পাওনা নিয়ে দীর্ঘদিন থেকে বিরোধ চলছিল। বিরোধ মেটাতে পৌর মেয়রের সম্মেলন কক্ষে সালিশি বৈঠক বসার কথা ছিল।

তার আগেই উভয়পক্ষ পৌরসভা চত্বরে সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়ে। এক পর্যায়ে ঠিকাদার হাসুকে কুপিয়ে জখম করে কাউন্সিলর রোকনুজ্জামান হিরো ও তার লোকজন। পরে হাসুর লোকজন কাউন্সিলর রোকনুজ্জামানের সমর্থক শিশিরের ঘাড়ে কুপিয়ে মারাত্মকভাবে জখম করে।

 

নিউজটি শেয়ার করুন

ট্যাগস :

নাটোরে যুবক হত্যার ঘটনায় উভয় পক্ষের দল নেতা গ্রেপ্তার

আপডেট সময় : ০৭:৩৪:৪৯ পূর্বাহ্ন, বুধবার, ১৭ এপ্রিল ২০২৪

 

নাটোরে ঠিকাদারি কাজের অর্থের লেনদেন সংক্রান্ত বিষয় নিয়ে কোন্দলের জেরে শিশির হোসেন (২৩) নামের এক যুবককে পৌরসভা চত্বরে শ’ শ’ মানুষের সামনে হিন্দি ফিল্মী স্টাইলে কুপিয়ে হত্যা করা হয়েছে।

দুই পক্ষের বিরোধ মেটাতে পৌর মেয়রের সম্মেলন কক্ষে সালিশি বৈঠক বসার আগেই দুই পক্ষের মাঝে সংঘর্ষ বাধে এবং শিশিরের মৃত্যু ঘটে।

পৌরসভা চত্বরের ভেতরে ৫নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর রোকনুজ্জামান হিরো ও ঠিকাদার হাসানুর রহমান হাসুর গ্রুপের মধ্যে সংঘর্ষ চলাকালে ধারালো অস্ত্র দিয়ে শিশিরকে আঘাত করা হলে নাটোর হাসপাতালে মারা যায়।

এ ঘটনায় দুই পক্ষের দলনেতাকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। জড়িত অন্যান্যদের গ্রেপ্তারে পুলিশ মাঠে থাকার কথা জানান, নাটোর পুলিশ সুপার মো. তারিকুল ইসলাম।


মঙ্গলবারের (১৬ এপ্রিল) এই ঘটনার পর পৌরসভা চত্বরে অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন রয়েছে। স্থানীয়রা জানান, কাউন্সিলর রোকনুজ্জামান হিরো এবং ঠিকাদার ও যুবলীগকর্মী হাসুর মধ্যে টেন্ডার সংক্রান্ত টাকা পাওনা নিয়ে দীর্ঘদিন থেকে বিরোধ চলছিল। বিরোধ মেটাতে পৌর মেয়রের সম্মেলন কক্ষে সালিশি বৈঠক বসার কথা ছিল।

তার আগেই উভয়পক্ষ পৌরসভা চত্বরে সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়ে। এক পর্যায়ে ঠিকাদার হাসুকে কুপিয়ে জখম করে কাউন্সিলর রোকনুজ্জামান হিরো ও তার লোকজন। পরে হাসুর লোকজন কাউন্সিলর রোকনুজ্জামানের সমর্থক শিশিরের ঘাড়ে কুপিয়ে মারাত্মকভাবে জখম করে।