ঢাকা ০৩:৩৫ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ১৭ জুন ২০২৪

পেঁয়াজ রপ্তানি বন্ধ করলো ভারত

গণমুক্তি রিপোর্ট
  • আপডেট সময় : ০৬:৫৫:৪১ অপরাহ্ন, শনিবার, ২৩ মার্চ ২০২৪ ১৩৮ বার পড়া হয়েছে
দৈনিক গনমুক্তি অনলাইনের সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি

 

ভারত হচ্ছে বিশ্বের সবচেয়ে বড় পেঁয়াজ রপ্তানিকারক দেশ। পেঁয়াজের রপ্তানির ক্ষেত্রে অনির্দিষ্ট সময়ের নিষেধাজ্ঞা জারি করলো ভারত। আর পেঁয়াজ রপ্তানি করবে না ভারত। শুক্রবার (২২ মার্চ) বিবৃতি জারি করে বন্ধের ঘোষণা দেয়। শনিবার তথ্য জানায় বিদেশি সংবাদমাধ্যম।

দেশটির অভ্যন্তরীণ বাজার স্থিতিশীল রাখতে গত বছর ডিসেম্বরে পেঁয়াজ রপ্তানিতে অস্থায়ী নিষেধাজ্ঞা দেয় সরকার, যার মেয়াদ ৩১ মার্চ শেষ হওয়ার কথা ছিল। এ নিষেধাজ্ঞা শিগগিরই তুলে নেওয়া হবে বলেও আশা করেছিলেন ব্যবসায়ীরা। কিন্তু শক্রবার এক আদেশে ভারত সরকার পরবর্তী নির্দেশ না দেওয়া পর্যন্ত পেঁয়াজের ওপর নিষেধাজ্ঞা বহাল রাখার ঘোষণা দেয়।

গত বছর পেঁয়াজ রপ্তানিতে নিষেধাজ্ঞা দেওয়ার পর থেকেই ভারতের স্থানীয় বাজারে পেঁয়াজের দাম অর্ধেকেরও বেশি কমে গেছে। চলতি মৌসুমের ফসলের নতুন সরবরাহও শুরু হয়েছে।

মুম্বাইভিত্তিক একটি রপ্তানি সংস্থার এক নির্বাহী বলেন, নতুন মৌসুমের ফসলের ক্রমবর্ধমান সরবরাহের সঙ্গে দরপতনের বিষয়টি বিবেচনায় নিলে, নিষেধাজ্ঞার সময়সীমা বাড়ানো বিষয়টি আশ্চর্যজনক এবং একেবারেই অপ্রয়োজনীয়।

বাংলাদেশ, মালয়েশিয়া, নেপাল এবং সংযুক্ত আরব আমিরাতের মতো দেশগুলো পেঁয়াজের ঘাটতি পূরণে ভারতের উপর নির্ভরশীল। পেঁয়াজ রফতানিতে নিষেধাজ্ঞা দেওয়ার পর থেকে উচ্চ মূল্যের সঙ্গে লড়ছে দেশগুলো।

নিউজটি শেয়ার করুন

ট্যাগস :

পেঁয়াজ রপ্তানি বন্ধ করলো ভারত

আপডেট সময় : ০৬:৫৫:৪১ অপরাহ্ন, শনিবার, ২৩ মার্চ ২০২৪

 

ভারত হচ্ছে বিশ্বের সবচেয়ে বড় পেঁয়াজ রপ্তানিকারক দেশ। পেঁয়াজের রপ্তানির ক্ষেত্রে অনির্দিষ্ট সময়ের নিষেধাজ্ঞা জারি করলো ভারত। আর পেঁয়াজ রপ্তানি করবে না ভারত। শুক্রবার (২২ মার্চ) বিবৃতি জারি করে বন্ধের ঘোষণা দেয়। শনিবার তথ্য জানায় বিদেশি সংবাদমাধ্যম।

দেশটির অভ্যন্তরীণ বাজার স্থিতিশীল রাখতে গত বছর ডিসেম্বরে পেঁয়াজ রপ্তানিতে অস্থায়ী নিষেধাজ্ঞা দেয় সরকার, যার মেয়াদ ৩১ মার্চ শেষ হওয়ার কথা ছিল। এ নিষেধাজ্ঞা শিগগিরই তুলে নেওয়া হবে বলেও আশা করেছিলেন ব্যবসায়ীরা। কিন্তু শক্রবার এক আদেশে ভারত সরকার পরবর্তী নির্দেশ না দেওয়া পর্যন্ত পেঁয়াজের ওপর নিষেধাজ্ঞা বহাল রাখার ঘোষণা দেয়।

গত বছর পেঁয়াজ রপ্তানিতে নিষেধাজ্ঞা দেওয়ার পর থেকেই ভারতের স্থানীয় বাজারে পেঁয়াজের দাম অর্ধেকেরও বেশি কমে গেছে। চলতি মৌসুমের ফসলের নতুন সরবরাহও শুরু হয়েছে।

মুম্বাইভিত্তিক একটি রপ্তানি সংস্থার এক নির্বাহী বলেন, নতুন মৌসুমের ফসলের ক্রমবর্ধমান সরবরাহের সঙ্গে দরপতনের বিষয়টি বিবেচনায় নিলে, নিষেধাজ্ঞার সময়সীমা বাড়ানো বিষয়টি আশ্চর্যজনক এবং একেবারেই অপ্রয়োজনীয়।

বাংলাদেশ, মালয়েশিয়া, নেপাল এবং সংযুক্ত আরব আমিরাতের মতো দেশগুলো পেঁয়াজের ঘাটতি পূরণে ভারতের উপর নির্ভরশীল। পেঁয়াজ রফতানিতে নিষেধাজ্ঞা দেওয়ার পর থেকে উচ্চ মূল্যের সঙ্গে লড়ছে দেশগুলো।