ঢাকা ১১:১৭ অপরাহ্ন, রবিবার, ১৯ মে ২০২৪

বাড়তি ভাড়া নিয়ে বিতন্ডায় প্রাণ গেলো চালক-হেলপারের মৃত্যু

গণমুক্তি ডিজিটাল ডেস্ক
  • আপডেট সময় : ১২:১২:০২ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ৯ এপ্রিল ২০২৪ ৯৮ বার পড়া হয়েছে
দৈনিক গনমুক্তি অনলাইনের সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি

 

বাড়তি ভাড়া নিয়ে বিতন্ডায় প্রাণ গেলো চালক-হেলপারের মৃত্যু। সাভারে ঈদযাত্রায় বাড়তি ভাড়া চাওয়ায় যাত্রী হেলপার-চালকের সঙ্গে বাকবিতন্ডা শুরু হয়।

আহত চালক ও হেলপারকে গাজীপুরের শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিব মেমোরিয়াল হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় সোমবার (৮ এপ্রিল) রাত সাড়ে ৮টার দিতোদের মৃত্যু হয়।

এর আগে সোমবার দুপুরে সাভারের নবীনগর-চন্দ্রা মহাসড়কের ডিইপিজেড এলাকায় যাত্রীদের মারধরে আহত হয় তারা।

ইতিহাস পরিবহনের বাসের চালক সোহেল রানা বাবু (২৬) এবং তার সহকারী (হেলপার) হৃদয় (৩০)। সোহেল রানা বাড়ি গাজীপুরের টঙ্গী এলাকায়। আর হৃদয় ময়মনসিংহের ফুলপুরে।

বাসের যাত্রীদের বরাত দিয়ে আশুলিয়া থানার পরিদর্শক (তদন্ত) মাকসুদুর রহমান বলেন, ইতিহাস পরিবহনের বাসটি মিরপুর-১৪ থেকে চন্দ্রা পর্যন্ত চলাচল করে। দুপুরে মিরপুর থেকে ছেড়ে আসা বাসটির যাত্রীদের কাছে ঈদযাত্রা হিসেবে বাড়তি ভাড়া চায়। এ নিয়ে বাগবিতন্ডা হয়।

এ সময় যাত্রীদের সঙ্গে চালকেরও তর্কবিতর্ক হয়। বাসটি ডিইপিজেড এলাকায় পৌঁছালে কয়েকজন যুবক বাসে উঠে চালক ও হেলপারকে মারধর শুরু করে। এলোপাতাড়ি মারধরে গুরুতর আহত হন।

আহত অবস্থায় তাদের গাজীপুরের শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিব মেমোরিয়াল কেপিজে হাসপাতালে ভর্তি করা হলে সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় রাতে দুজনের মৃত্যু হয়।

নিউজটি শেয়ার করুন

ট্যাগস :

বাড়তি ভাড়া নিয়ে বিতন্ডায় প্রাণ গেলো চালক-হেলপারের মৃত্যু

আপডেট সময় : ১২:১২:০২ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ৯ এপ্রিল ২০২৪

 

বাড়তি ভাড়া নিয়ে বিতন্ডায় প্রাণ গেলো চালক-হেলপারের মৃত্যু। সাভারে ঈদযাত্রায় বাড়তি ভাড়া চাওয়ায় যাত্রী হেলপার-চালকের সঙ্গে বাকবিতন্ডা শুরু হয়।

আহত চালক ও হেলপারকে গাজীপুরের শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিব মেমোরিয়াল হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় সোমবার (৮ এপ্রিল) রাত সাড়ে ৮টার দিতোদের মৃত্যু হয়।

এর আগে সোমবার দুপুরে সাভারের নবীনগর-চন্দ্রা মহাসড়কের ডিইপিজেড এলাকায় যাত্রীদের মারধরে আহত হয় তারা।

ইতিহাস পরিবহনের বাসের চালক সোহেল রানা বাবু (২৬) এবং তার সহকারী (হেলপার) হৃদয় (৩০)। সোহেল রানা বাড়ি গাজীপুরের টঙ্গী এলাকায়। আর হৃদয় ময়মনসিংহের ফুলপুরে।

বাসের যাত্রীদের বরাত দিয়ে আশুলিয়া থানার পরিদর্শক (তদন্ত) মাকসুদুর রহমান বলেন, ইতিহাস পরিবহনের বাসটি মিরপুর-১৪ থেকে চন্দ্রা পর্যন্ত চলাচল করে। দুপুরে মিরপুর থেকে ছেড়ে আসা বাসটির যাত্রীদের কাছে ঈদযাত্রা হিসেবে বাড়তি ভাড়া চায়। এ নিয়ে বাগবিতন্ডা হয়।

এ সময় যাত্রীদের সঙ্গে চালকেরও তর্কবিতর্ক হয়। বাসটি ডিইপিজেড এলাকায় পৌঁছালে কয়েকজন যুবক বাসে উঠে চালক ও হেলপারকে মারধর শুরু করে। এলোপাতাড়ি মারধরে গুরুতর আহত হন।

আহত অবস্থায় তাদের গাজীপুরের শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিব মেমোরিয়াল কেপিজে হাসপাতালে ভর্তি করা হলে সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় রাতে দুজনের মৃত্যু হয়।