ঢাকা ০৪:০০ পূর্বাহ্ন, শনিবার, ২৫ মে ২০২৪

১৫ ঘণ্টা পর ফের সচল চট্টগ্রামের সঙ্গে রেল যোগাযোগ

প্রতিনিধির নাম
  • আপডেট সময় : ১২:৪৬:৩৬ অপরাহ্ন, সোমবার, ১৮ মার্চ ২০২৪ ১৪০ বার পড়া হয়েছে
দৈনিক গনমুক্তি অনলাইনের সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি

 

বিজয় এক্সপ্রেস দুর্ঘটনার পর টানা ১৫ ঘন্টা বন্দর নগরী চট্টগ্রামের সঙ্গে দেশের রেল যোগাযোগ বন্ধ ছিলো। রেলপথ মেরামত শেষে সোমবার (১৮ মার্চ) ভোর ৫টা ৪০ মিনিটে রেলপথটি সচল হয়।রেলপথ সচলের পর এপথে কক্সবাজার এক্সপ্রেস ট্রেনটি কক্সবাজারে গিয়েছে।

রোবার বেলা পৌনে দুইটা নাগাদ কুমিল্লার নাঙ্গলকোটে দুর্ঘটনায় পড়ে বিজয় এক্সপ্রেস। এরপর ১৫ ঘন্টা চেষ্টার পর এ পথে ট্রেন চলাচল স্বাভাবিক হলো। ডাবল লাইনের অপর পথটি সচলে কাজ করছে রেলওয়ে।

চট্টগ্রাম বিভাগীয় রেলওয়ে ব্যবস্থাপক মোহাম্মদ সাইফুল ইসলাম সংবাদমাধ্যমকে জানান, তারা দীর্ঘ একটি উদ্ধার কাজের পর ডাউন লাইনটি সচল করেছেন। ইতোমধ্যে এক লাইনে ট্রেন চলাচল স্বাভাবিক হয়েছে।

অপর লাইনটিতে কিছু বগি পড়ে রয়েছে। চট্টগ্রামে আটকে পড়া সব ট্রেন পরপর ছেড়ে এসেছে। সেগুলো কাছাকাছি স্টেশনে অবস্থান করছে। ঢাকাসহ চট্টগ্রামের উদ্দেশে ছেড়ে আসা যেসব ট্রেন বিভিন্ন স্টেশনে আটকে ছিল সেগুলোও চট্টগ্রামের উদ্দেশে যাত্রা শুরু করেছে।

দুর্ঘটনার ১৫টির যাত্রীবাহী এবং কয়েকটি পণ্য ট্রেন গন্তব্য ছেড়ে এসে বিভিন্ন স্থানে আটকা পড়ে। বেশ কিছু ট্রেনের শিডিউল বাতিল করা হয়।

রেলেওয়ের কর্মকর্তা জানান, আমরা জানি না কখন পুরো কাজটি শেষ হবে। লাইনটি যেভাবে উপড়ে গিয়েছে, তেমনটি সাধারণ হয় না। মেরামতে সময় লাগবে, কিন্তু একটি লাইন চালুর মধ্য দিয়ে ভোগান্তি কিছুটা কমবে।

রোববার (১৭ মার্চ) বেলা পৌনে ২টা নাগাদ জামালপুরগামী বিজয় এক্সপ্রেস ট্রেনের ৯টি বগি লাইনচ্যুত হয়। কুমিল্লার নাঙ্গলকোট উপজেলায় হাসানপুর রেলস্টেশনের অদূরে তেজেরবাজার এলাকায় এ দুর্ঘটনা।

নিউজটি শেয়ার করুন

ট্যাগস :

১৫ ঘণ্টা পর ফের সচল চট্টগ্রামের সঙ্গে রেল যোগাযোগ

আপডেট সময় : ১২:৪৬:৩৬ অপরাহ্ন, সোমবার, ১৮ মার্চ ২০২৪

 

বিজয় এক্সপ্রেস দুর্ঘটনার পর টানা ১৫ ঘন্টা বন্দর নগরী চট্টগ্রামের সঙ্গে দেশের রেল যোগাযোগ বন্ধ ছিলো। রেলপথ মেরামত শেষে সোমবার (১৮ মার্চ) ভোর ৫টা ৪০ মিনিটে রেলপথটি সচল হয়।রেলপথ সচলের পর এপথে কক্সবাজার এক্সপ্রেস ট্রেনটি কক্সবাজারে গিয়েছে।

রোবার বেলা পৌনে দুইটা নাগাদ কুমিল্লার নাঙ্গলকোটে দুর্ঘটনায় পড়ে বিজয় এক্সপ্রেস। এরপর ১৫ ঘন্টা চেষ্টার পর এ পথে ট্রেন চলাচল স্বাভাবিক হলো। ডাবল লাইনের অপর পথটি সচলে কাজ করছে রেলওয়ে।

চট্টগ্রাম বিভাগীয় রেলওয়ে ব্যবস্থাপক মোহাম্মদ সাইফুল ইসলাম সংবাদমাধ্যমকে জানান, তারা দীর্ঘ একটি উদ্ধার কাজের পর ডাউন লাইনটি সচল করেছেন। ইতোমধ্যে এক লাইনে ট্রেন চলাচল স্বাভাবিক হয়েছে।

অপর লাইনটিতে কিছু বগি পড়ে রয়েছে। চট্টগ্রামে আটকে পড়া সব ট্রেন পরপর ছেড়ে এসেছে। সেগুলো কাছাকাছি স্টেশনে অবস্থান করছে। ঢাকাসহ চট্টগ্রামের উদ্দেশে ছেড়ে আসা যেসব ট্রেন বিভিন্ন স্টেশনে আটকে ছিল সেগুলোও চট্টগ্রামের উদ্দেশে যাত্রা শুরু করেছে।

দুর্ঘটনার ১৫টির যাত্রীবাহী এবং কয়েকটি পণ্য ট্রেন গন্তব্য ছেড়ে এসে বিভিন্ন স্থানে আটকা পড়ে। বেশ কিছু ট্রেনের শিডিউল বাতিল করা হয়।

রেলেওয়ের কর্মকর্তা জানান, আমরা জানি না কখন পুরো কাজটি শেষ হবে। লাইনটি যেভাবে উপড়ে গিয়েছে, তেমনটি সাধারণ হয় না। মেরামতে সময় লাগবে, কিন্তু একটি লাইন চালুর মধ্য দিয়ে ভোগান্তি কিছুটা কমবে।

রোববার (১৭ মার্চ) বেলা পৌনে ২টা নাগাদ জামালপুরগামী বিজয় এক্সপ্রেস ট্রেনের ৯টি বগি লাইনচ্যুত হয়। কুমিল্লার নাঙ্গলকোট উপজেলায় হাসানপুর রেলস্টেশনের অদূরে তেজেরবাজার এলাকায় এ দুর্ঘটনা।