ঢাকা ১০:৫৪ অপরাহ্ন, রবিবার, ১৯ মে ২০২৪

২৬ মার্চ, মহান স্বাধীনতা ও জাতীয় দিবস

গণমুক্তি রিপোর্ট
  • আপডেট সময় : ০৪:৩৯:৪৩ পূর্বাহ্ন, মঙ্গলবার, ২৬ মার্চ ২০২৪ ১২৯ বার পড়া হয়েছে

ছবি সংগ্রহ

দৈনিক গনমুক্তি অনলাইনের সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি

 

বাঙালির সর্বশ্রেষ্ঠ অর্জন     

২৬ মার্চ, মহান স্বাধীনতা ও জাতীয় দিবস। ৫৪ বছরে পদার্পণ করল বাংলাদেশ। ১৯৭১ সালের ২৬ মার্চের প্রথম প্রহরে বাঙালি জাতির অবিসংবাদিত নেতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ঘোষণা করেন বাংলাদেশের স্বাধীনতা। ৯ মাসের রক্তক্ষয়ী মুক্তিযুদ্ধের মাধ্যমে ১৬ ডিসেম্বর বিশ্বের মানচিত্রে নতুন রাষ্ট্র হিসেবে আত্মপ্রকাশ ঘটেছিল বাংলাদেশের।

৩০ লাখ শহিদের আত্মদান আর ২ লাখ মা-বোনের ত্যাগ-তিতিক্ষা এবং কোটি বাঙালির আত্মনিবেদন ও সংগ্রামের গৌরবগাঁথা গণবীরত্বের ইতিহাস।

প্রত্যুষে ঢাকাসহ দেশজুড়ে ৩১ বার তোপধ্বনির মাধ্যমে দিবসটির সূচনা হবে। সূর্যোদয়ের সঙ্গে সঙ্গে রাষ্ট্রপতি ও প্রধানমন্ত্রী সাভারে জাতীয় স্মৃতিসৌধে পুষ্পস্তবক অর্পণ করবেন।

৫৩ বছর আগে ১৯৭১ সালের এই দিনে ডাক এসেছিল দেশকে পাকিস্তানি হানারদের কবল থেকে মুক্ত করার। পাকিস্তানি শোষকের হাত থেকে প্রিয় মাতৃভূমিকে স্বাধীন করতে রণাঙ্গনে ঝাঁপিয়ে পড়েছিল বাংলার দামাল ছেলেরা। আনুষ্ঠানিক সূচনা ঘটে সশস্ত্র মুক্তিযুদ্ধের। ৯ মাসের সশস্ত্র যুদ্ধের মধ্যদিয়ে ১৬ ডিসেম্বর অর্জিত হয়েছিল স্বাধীনতা ও সার্বভৌমত্ব।

স্বাধীনতা ও জাতীয় দিবস দিবস উপলক্ষে রাষ্ট্রপতি মো. সাহাবুদ্দিন ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বাণী দিয়েছেন। পৃথক বাণীতে দেশবাসীকে স্বাধীনতার শুভেচ্ছা জানিয়েছেন তারা।

এদিন সকালে ধানমন্ডির ৩২ নম্বরে বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে শ্রদ্ধা নিবেদন করবেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। এরপর সভারে জাতীয় স্মৃতিসৌধে বীর শহীদের প্রতি সম্মান জানাবেন।

ধানমন্ডি ৩২ নম্বর বঙ্গবন্ধু ভবনে আওয়ামী লী ও অঙ্গসংগঠনের নেতাকর্মী ছাড়াও বিভিন্ন সামাজিক-সাংস্কৃতিক সংগঠন বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে শ্রদ্ধা নিবেন করবে।

নানা আয়োজনের মধ্য দিয়ে দিবসটি উদযাপিত হবে। রাষ্ট্রীয় অনুষ্ঠানের বাইরেও বিভিন্ন রাজনৈতিক দল, সামাজিক ও সাংস্কৃতিক সংগঠন নানা কর্মসূচি হাতে নিয়েছে।

স্বাধীনতা দিবস উপলক্ষে আওয়ামী লীগের কর্মসূচির মধ্যে সূর্যোদয়ের ক্ষণে বঙ্গবন্ধু ভবন, কেন্দ্রীয় কার্যালয় এবং সারা দেশে সংগঠনের সকল কার্যালয়ে জাতীয় ও দলীয় পতাকা উত্তোলন করা হবে। ভোর ৫টা ৫৬ মিনিটে জাতীয় স্মৃতিসৌধে শ্রদ্ধা নিবেদন করা হবে। এতে দলের সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদকসহ কেন্দ্রীয় নেতারা অংশ নেবেন।

সকাল ৭টায় ধানমন্ডি ৩২ নম্বরে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের প্রতিকৃতিতে আওয়ামী লীগের পক্ষ থেকে শ্রদ্ধা জানানো হবে। বেলা ১১টায় দলটির কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী সংসদের একটি প্রতিনিধিদল টুঙ্গিপাড়ায় চিরনিদ্রায় শায়িত জাতির পিতার সমাধিতে শ্রদ্ধা নিবেদন করবে। পরে দোয়া ও মিলাদ মাহফিলের আয়োজন করা হবে।

স্বাধীনতা দিবস উপলক্ষ্যে ২৭ মার্চ বেলা ১১টায় তেজগাঁওয়ের ঢাকা জেলা আওয়ামী লীগ ভবনে আলোচনাসভা অনুষ্ঠিত হবে। এতে সভাপতিত্ব করবেন আওয়ামী লীগ সভাপতি ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

নিউজটি শেয়ার করুন

ট্যাগস :

২৬ মার্চ, মহান স্বাধীনতা ও জাতীয় দিবস

আপডেট সময় : ০৪:৩৯:৪৩ পূর্বাহ্ন, মঙ্গলবার, ২৬ মার্চ ২০২৪

 

বাঙালির সর্বশ্রেষ্ঠ অর্জন     

২৬ মার্চ, মহান স্বাধীনতা ও জাতীয় দিবস। ৫৪ বছরে পদার্পণ করল বাংলাদেশ। ১৯৭১ সালের ২৬ মার্চের প্রথম প্রহরে বাঙালি জাতির অবিসংবাদিত নেতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ঘোষণা করেন বাংলাদেশের স্বাধীনতা। ৯ মাসের রক্তক্ষয়ী মুক্তিযুদ্ধের মাধ্যমে ১৬ ডিসেম্বর বিশ্বের মানচিত্রে নতুন রাষ্ট্র হিসেবে আত্মপ্রকাশ ঘটেছিল বাংলাদেশের।

৩০ লাখ শহিদের আত্মদান আর ২ লাখ মা-বোনের ত্যাগ-তিতিক্ষা এবং কোটি বাঙালির আত্মনিবেদন ও সংগ্রামের গৌরবগাঁথা গণবীরত্বের ইতিহাস।

প্রত্যুষে ঢাকাসহ দেশজুড়ে ৩১ বার তোপধ্বনির মাধ্যমে দিবসটির সূচনা হবে। সূর্যোদয়ের সঙ্গে সঙ্গে রাষ্ট্রপতি ও প্রধানমন্ত্রী সাভারে জাতীয় স্মৃতিসৌধে পুষ্পস্তবক অর্পণ করবেন।

৫৩ বছর আগে ১৯৭১ সালের এই দিনে ডাক এসেছিল দেশকে পাকিস্তানি হানারদের কবল থেকে মুক্ত করার। পাকিস্তানি শোষকের হাত থেকে প্রিয় মাতৃভূমিকে স্বাধীন করতে রণাঙ্গনে ঝাঁপিয়ে পড়েছিল বাংলার দামাল ছেলেরা। আনুষ্ঠানিক সূচনা ঘটে সশস্ত্র মুক্তিযুদ্ধের। ৯ মাসের সশস্ত্র যুদ্ধের মধ্যদিয়ে ১৬ ডিসেম্বর অর্জিত হয়েছিল স্বাধীনতা ও সার্বভৌমত্ব।

স্বাধীনতা ও জাতীয় দিবস দিবস উপলক্ষে রাষ্ট্রপতি মো. সাহাবুদ্দিন ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বাণী দিয়েছেন। পৃথক বাণীতে দেশবাসীকে স্বাধীনতার শুভেচ্ছা জানিয়েছেন তারা।

এদিন সকালে ধানমন্ডির ৩২ নম্বরে বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে শ্রদ্ধা নিবেদন করবেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। এরপর সভারে জাতীয় স্মৃতিসৌধে বীর শহীদের প্রতি সম্মান জানাবেন।

ধানমন্ডি ৩২ নম্বর বঙ্গবন্ধু ভবনে আওয়ামী লী ও অঙ্গসংগঠনের নেতাকর্মী ছাড়াও বিভিন্ন সামাজিক-সাংস্কৃতিক সংগঠন বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে শ্রদ্ধা নিবেন করবে।

নানা আয়োজনের মধ্য দিয়ে দিবসটি উদযাপিত হবে। রাষ্ট্রীয় অনুষ্ঠানের বাইরেও বিভিন্ন রাজনৈতিক দল, সামাজিক ও সাংস্কৃতিক সংগঠন নানা কর্মসূচি হাতে নিয়েছে।

স্বাধীনতা দিবস উপলক্ষে আওয়ামী লীগের কর্মসূচির মধ্যে সূর্যোদয়ের ক্ষণে বঙ্গবন্ধু ভবন, কেন্দ্রীয় কার্যালয় এবং সারা দেশে সংগঠনের সকল কার্যালয়ে জাতীয় ও দলীয় পতাকা উত্তোলন করা হবে। ভোর ৫টা ৫৬ মিনিটে জাতীয় স্মৃতিসৌধে শ্রদ্ধা নিবেদন করা হবে। এতে দলের সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদকসহ কেন্দ্রীয় নেতারা অংশ নেবেন।

সকাল ৭টায় ধানমন্ডি ৩২ নম্বরে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের প্রতিকৃতিতে আওয়ামী লীগের পক্ষ থেকে শ্রদ্ধা জানানো হবে। বেলা ১১টায় দলটির কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী সংসদের একটি প্রতিনিধিদল টুঙ্গিপাড়ায় চিরনিদ্রায় শায়িত জাতির পিতার সমাধিতে শ্রদ্ধা নিবেদন করবে। পরে দোয়া ও মিলাদ মাহফিলের আয়োজন করা হবে।

স্বাধীনতা দিবস উপলক্ষ্যে ২৭ মার্চ বেলা ১১টায় তেজগাঁওয়ের ঢাকা জেলা আওয়ামী লীগ ভবনে আলোচনাসভা অনুষ্ঠিত হবে। এতে সভাপতিত্ব করবেন আওয়ামী লীগ সভাপতি ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।