×
  • প্রকাশিত : ২০২৩-০১-২৪
  • ৩৬ বার পঠিত
স্টাফ রিপোর্টার : আয়কর আইন-২০২৩ এর খসড়ার নীতিগত অনুমোদন দিয়েছে মন্ত্রিসভা। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সভাপতিত্বে গতকাল সোমবার তার কার্যালয়ে মন্ত্রিসভার নিয়মিত বৈঠকে ২০২২ সালের চতুর্থ ত্রৈমাসিক প্রতিবেদনে এ তথ্য উপস্থাপন করা হয়। বৈঠক শেষে সচিবালয়ে মন্ত্রিপরিষদ সচিব মো. মাহবুব হোসেন বলেন, ‘বর্তমানে ব্যবসায়ীদের রিটার্ন দাখিলের ক্ষেত্রে ২৯টি বাধ্যবাধকতা অনুসরণ করতে হয়। নতুন এ আইন কার্যকর হলে ১২টি অধ্যায় পূরণ করলেই হবে।’ এটি আইনে কার্যকর হলে ব্যবসায়ীদের রিটার্ন দাখিল প্রক্রিয়া আরও সহজ হবে। তিনি বলেন, গত বছরের অক্টোবর থেকে ডিসেম্বর প্রান্তিকে ছয়টি মন্ত্রিসভা বৈঠকে ৯০টি সিদ্ধান্ত নেয়া হয়। এর মধ্যে ৬১টি সিদ্ধান্ত বাস্তবায়ন করা হয়েছে। ২৯টি সিদ্ধান্ত বাস্তবায়নাধীন রয়েছে। সিদ্ধান্ত বাস্তবায়নের হার ৬৭ দশমিক ৭৮ শতাংশ।  প্রস্তাবিত আইনের উদ্দেশ্যগুলো উল্লেখ করে সচিব বলেন, ‘মানুষ যাতে ট্যাক্স দিতে উৎসাহ পায় এ জন্যই নতুন এ আইন কর হচ্ছে। এই আইনের ফলে কর দিতে মানুষের হয়রানি কমবে। একই সঙ্গে ট্যাক্সের পরিধিও বাড়বে।  এক প্রশ্নের জবাবে সচিব জানান, ‘এই আইনে করদাতার করের পরিমাণ নির্ধারণ করে দেওয়ার ক্ষমতা আয়কর কর্মকর্তার থাকছে না। 

করদাতার দেওয়ার তথ্যের ভিত্তিতেই কর নির্ধারিত হবে। ফলে কর্মকর্তার চাপিয়ে দেওয়া করের পরিমাণ ঠিক করার ফলে আপিলের পরিমাণ কমবে। সেই সঙ্গে কমবে করদাতার হয়রানিও।’ এছাড়াও আজকের মন্ত্রিসভার বৈঠকে ‘এজেন্সি টু ইনোভেট’(এ টু আই) আইন এর খসড়ায় চূড়ান্ত অনুমোদন দেওয়া হয়েছে। তথ্যপ্রযুক্তি ক্ষেত্রে সরকারের নেওয়া পদক্ষেপগুলোতে সহযোগিতা দেওয়ার জন্য এই আইন করা হচ্ছে। সচিব বলেন, ‘এ আইনের অধীনে ১৫ সদস্যের একটি পরিচালনা বোর্ড থাকবে। যার প্রধান হবেন তথ্য ও প্রযুক্তি মন্ত্রণালয়ের মন্ত্রী। 

নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর..
ফেসবুকে আমরা...
ক্যালেন্ডার...

Sun
Mon
Tue
Wed
Thu
Fri
Sat