ঢাকা ০৩:০৯ অপরাহ্ন, বুধবার, ২৪ জুলাই ২০২৪

সাবেক থাই প্রধানমন্ত্রী থাকসিন কারামুক্ত

গণমুক্তি ডিজিটাল ডেস্ক
  • আপডেট সময় : ১১:০০:৫৯ পূর্বাহ্ন, রবিবার, ১৮ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ ২০১ বার পড়া হয়েছে

সাবেক প্রধানমন্ত্রী থাকসিন সিনাওয়াত্রাকে রবিবার প্যারোলে মুক্তি দেয়া হয়েছে: ছবি সংগৃহীত

দৈনিক গনমুক্তি অনলাইনের সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি

 

ছয় মাস বন্দী থাকার পর থাইল্যান্ডের সাবেক প্রধানমন্ত্রী থাকসিন সিনাওয়াত্রাকে রবিবার (১৮ ফেব্রুয়ারি) প্যারোলে মুক্তি পেয়েছেন। ৭৪ বছর বয়সী সাবেক এই থাই প্রধানমন্ত্রী হাসপাতাল চিকিৎসা নিচ্ছিলেন।

১৫ বছরের স্বেচ্ছা-নির্বাসন কাটিয়ে গেল বছর দেশে ফিরে কারাবন্দি হন থাকসিন সিনাওয়াত্রা। মাত্র ছয় মাস কারাভোগের পরই মুক্তি পান।

বিদেশি সংবাদমাধ্যমগুলো জানাচ্ছে, থাকসিনের আইনজীবী বরাত দিয়ে জানিয়েছেন থাইল্যান্ডের দোষী সাব্যস্ত সাবেক প্রধানমন্ত্রী থাকসিনকে রবিবার প্যারোলে মুক্তি দেয়া হয়েছে।

গত বছরের ২২ আগস্ট সিঙ্গাপুরে ১৫ বছরের স্বেচ্ছা নির্বাসন শেষে ব্যক্তিগত বিমানে করে থাইল্যান্ডের ডন মুয়াং বিমানবন্দরে অবতরণ করেন থাকসিন। বিমানবন্দর থেকে আদালতের মাধ্যমে তাকে কারাগারে নেয়া হয়। কারাগারে নেয়ার কয়েক ঘণ্টার মধ্যেই থাকসিনকে হাসপাতালে নেয়া হয়।

অবশ্য শনিবার থাইল্যান্ডের প্রধানমন্ত্রী সেরেথা থাভাইসিন বলেন, দেশের আইন অনুসারে, আগামী ১৮ ফেব্রুয়ারি (রবিবার) থাকসিন সিনাওয়াত্রাকে মুক্তি দেয়া হবে।

২০০১ সালে থাইল্যান্ডের প্রধানমন্ত্রী নির্বাচিত হন থাকসিন। পরে এক অভ্যুত্থানের মাধ্যমে ২০০৬ সালের ৯ সেপ্টেম্বর ক্ষমতাচ্যুত হন তিনি। ক্ষমতাচ্যুত হওয়ার পর থেকেই দেশের বাইরে স্বেচ্ছা নির্বাসনে ছিলেন।

নিউজটি শেয়ার করুন

ট্যাগস :

সাবেক থাই প্রধানমন্ত্রী থাকসিন কারামুক্ত

আপডেট সময় : ১১:০০:৫৯ পূর্বাহ্ন, রবিবার, ১৮ ফেব্রুয়ারী ২০২৪

 

ছয় মাস বন্দী থাকার পর থাইল্যান্ডের সাবেক প্রধানমন্ত্রী থাকসিন সিনাওয়াত্রাকে রবিবার (১৮ ফেব্রুয়ারি) প্যারোলে মুক্তি পেয়েছেন। ৭৪ বছর বয়সী সাবেক এই থাই প্রধানমন্ত্রী হাসপাতাল চিকিৎসা নিচ্ছিলেন।

১৫ বছরের স্বেচ্ছা-নির্বাসন কাটিয়ে গেল বছর দেশে ফিরে কারাবন্দি হন থাকসিন সিনাওয়াত্রা। মাত্র ছয় মাস কারাভোগের পরই মুক্তি পান।

বিদেশি সংবাদমাধ্যমগুলো জানাচ্ছে, থাকসিনের আইনজীবী বরাত দিয়ে জানিয়েছেন থাইল্যান্ডের দোষী সাব্যস্ত সাবেক প্রধানমন্ত্রী থাকসিনকে রবিবার প্যারোলে মুক্তি দেয়া হয়েছে।

গত বছরের ২২ আগস্ট সিঙ্গাপুরে ১৫ বছরের স্বেচ্ছা নির্বাসন শেষে ব্যক্তিগত বিমানে করে থাইল্যান্ডের ডন মুয়াং বিমানবন্দরে অবতরণ করেন থাকসিন। বিমানবন্দর থেকে আদালতের মাধ্যমে তাকে কারাগারে নেয়া হয়। কারাগারে নেয়ার কয়েক ঘণ্টার মধ্যেই থাকসিনকে হাসপাতালে নেয়া হয়।

অবশ্য শনিবার থাইল্যান্ডের প্রধানমন্ত্রী সেরেথা থাভাইসিন বলেন, দেশের আইন অনুসারে, আগামী ১৮ ফেব্রুয়ারি (রবিবার) থাকসিন সিনাওয়াত্রাকে মুক্তি দেয়া হবে।

২০০১ সালে থাইল্যান্ডের প্রধানমন্ত্রী নির্বাচিত হন থাকসিন। পরে এক অভ্যুত্থানের মাধ্যমে ২০০৬ সালের ৯ সেপ্টেম্বর ক্ষমতাচ্যুত হন তিনি। ক্ষমতাচ্যুত হওয়ার পর থেকেই দেশের বাইরে স্বেচ্ছা নির্বাসনে ছিলেন।