ঢাকা ০৮:০৮ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ১২ জুলাই ২০২৪

অপরাধ ট্রাইব্যুনালের চিফ প্রসিকিউটর ভাষা সৈনিক গোলাম আরিফ টিপুর মৃত্যু

প্রতিনিধির নাম
  • আপডেট সময় : ১২:৩০:১৮ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ১৫ মার্চ ২০২৪ ১৭৯ বার পড়া হয়েছে

ভাষা সৈনিক গোলাম আরিফ টিপু আর নেইগোলাম আরিফ টিপু : ছবি সংগ্রহ

দৈনিক গনমুক্তি অনলাইনের সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি

 

আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনালের চিফ প্রসিকিউটর ভাষা সৈনিক গোলাম আরিফ টিপু শুক্রবার সকাল ৮টা নাগাদ ঢাকার ল্যাবএইড হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান। (ইন্না লিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাইহি রাজিউন)।

ভাষা সৈনিক গোলাম আরিফ টিপু ১৯৫২ সালে রাজশাহীতে বাংলা ভাষা আন্দোলন মূলত তার নেতৃত্বে সংগঠিত হয়। রাষ্ট্রভাষা সংগ্রাম পরিষদের রাজশাহী অঞ্চলের যুগ্ম আহ্বায়ক হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন। ভাষা আন্দোলনে বিশেষ অবদানের জন্য ২০১৯ সালে একুশে পদকে ভূষিত হন।

এই ভাষা সৈনিক ১৯৭১ সালে মহান স্বাধীনতা যুদ্ধের সময় সংগঠিত মানবতাবিরোধী অপরাধের বিচারে গঠিত আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনালের চিফ প্রসিকিউটর (অ্যাটর্নি জেনারেল পদমর্যাদা) হিসেবে দায়িত্ব পালন করছিলেন।

১৯৩১ সালের ২৮ আগস্ট গোলাম আরিফ টিপু চাঁপাইনবাবগঞ্জের শিবগঞ্জ উপজেলার কমলাকান্তপুর গ্রামে জন্মগ্রহণ করেন। তার পিতা আফতাব উদ্দিন আহমদ ছিলেন জেলা রেজিস্ট্রার।

তিনি কালিয়াচর বিদ্যালয় থেকে ১৯৪৮ সালে মাধ্যমিক এবং ১৯৫০ সালে রাজশাহী কলেজ থেকে উচ্চ মাধ্যমিক পাস করেন। একই কলেজ থেকে আইন বিষয়ে স্নাতক সম্পন্নর পর ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় থেকে স্নাতকোত্তর ডিগ্রি অর্জন করেন।

১৯৫৪ থেকে ১৯৫৬ সাল পর্যন্ত তিনি বাংলাদেশ ছাত্র ইউনিয়নের সাধারণ সম্পাদক ছিলেন। তিনি আইনজীবী, মুক্তিযোদ্ধা ও ভাষা আন্দোলনকর্মী।

নিউজটি শেয়ার করুন

ট্যাগস :

অপরাধ ট্রাইব্যুনালের চিফ প্রসিকিউটর ভাষা সৈনিক গোলাম আরিফ টিপুর মৃত্যু

আপডেট সময় : ১২:৩০:১৮ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ১৫ মার্চ ২০২৪

 

আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনালের চিফ প্রসিকিউটর ভাষা সৈনিক গোলাম আরিফ টিপু শুক্রবার সকাল ৮টা নাগাদ ঢাকার ল্যাবএইড হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান। (ইন্না লিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাইহি রাজিউন)।

ভাষা সৈনিক গোলাম আরিফ টিপু ১৯৫২ সালে রাজশাহীতে বাংলা ভাষা আন্দোলন মূলত তার নেতৃত্বে সংগঠিত হয়। রাষ্ট্রভাষা সংগ্রাম পরিষদের রাজশাহী অঞ্চলের যুগ্ম আহ্বায়ক হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন। ভাষা আন্দোলনে বিশেষ অবদানের জন্য ২০১৯ সালে একুশে পদকে ভূষিত হন।

এই ভাষা সৈনিক ১৯৭১ সালে মহান স্বাধীনতা যুদ্ধের সময় সংগঠিত মানবতাবিরোধী অপরাধের বিচারে গঠিত আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনালের চিফ প্রসিকিউটর (অ্যাটর্নি জেনারেল পদমর্যাদা) হিসেবে দায়িত্ব পালন করছিলেন।

১৯৩১ সালের ২৮ আগস্ট গোলাম আরিফ টিপু চাঁপাইনবাবগঞ্জের শিবগঞ্জ উপজেলার কমলাকান্তপুর গ্রামে জন্মগ্রহণ করেন। তার পিতা আফতাব উদ্দিন আহমদ ছিলেন জেলা রেজিস্ট্রার।

তিনি কালিয়াচর বিদ্যালয় থেকে ১৯৪৮ সালে মাধ্যমিক এবং ১৯৫০ সালে রাজশাহী কলেজ থেকে উচ্চ মাধ্যমিক পাস করেন। একই কলেজ থেকে আইন বিষয়ে স্নাতক সম্পন্নর পর ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় থেকে স্নাতকোত্তর ডিগ্রি অর্জন করেন।

১৯৫৪ থেকে ১৯৫৬ সাল পর্যন্ত তিনি বাংলাদেশ ছাত্র ইউনিয়নের সাধারণ সম্পাদক ছিলেন। তিনি আইনজীবী, মুক্তিযোদ্ধা ও ভাষা আন্দোলনকর্মী।