ঢাকা ০৩:১৩ অপরাহ্ন, বুধবার, ২৪ জুলাই ২০২৪

এক মাস পর খুললো ঘুমধুম-তুমব্রু সীমান্তের পাঁচ শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান

বান্দরবান প্রতিনিধি
  • আপডেট সময় : ১২:২৬:১৫ অপরাহ্ন, বুধবার, ২৮ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ ১৮৫ বার পড়া হয়েছে
দৈনিক গনমুক্তি অনলাইনের সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি

 

সীমান্তের ওপারে তুমুল সংঘর্ষ এবং এবারে এসে মর্টার সেল পড়ার ঘটনা কেন্দ্র সীমান্তজুড়ে আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে। এ ঘটনায় বান্দরবানের নাইক্ষ্যংছড়ি উপজেলার ঘুমধুম ও তুমব্রু সীমান্তে পাঁচটি প্রাথমিক বিদ্যালয় ও একটি মাদ্রাসা বন্ধ রাখা হয়।

প্রায় এক মাস বন্ধ থাকার পর বুধবার সকাল থেকে এসব শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান চালু য়েছে। এরমধ্যে রয়েছে, ঘুমধুম সীমান্ত এলাকার বাইশ পারি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়, ভাজা বনিয়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়, তুমব্রু সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়, পশ্চিম কুল তুমব্রু সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়, দক্ষিণ ঘুমধুম সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় ও দক্ষিণ ঘুমধুম মিসকাতুল নবী দাখিল মাদ্রাসা।

ছবি সংগ্রহ

বান্দরবান জেলা প্রশাসক শাহ মোজাহিদ উদ্দিন সংবাদমাধ্যমকে জানান, সীমান্ত পরিস্থিতি স্বাভাবিক হওয়ায় বুধবার থেকে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানগুলো খুলে দেওয়ার নির্দেশ দেয়া হয়েছে।

গত ১৩ জানুয়ারি থেকে মিয়ানমার সীমান্তে দেশটির জান্তা বাহিনীর সঙ্গে আরাকান আর্মির লাগাতার সংঘর্ষ চলছে। এ কারণে ২৯ জানুয়ারি থেকে বাংলাদেশের বান্দরবানের নাইক্ষ্যংছড়ি উপজেলার ঘুমধুম ও তুমব্রু সীমান্তে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানগুলো বন্ধ ঘোষণা করেছিলো জেলা প্রশাসন।

নিউজটি শেয়ার করুন

ট্যাগস :

এক মাস পর খুললো ঘুমধুম-তুমব্রু সীমান্তের পাঁচ শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান

আপডেট সময় : ১২:২৬:১৫ অপরাহ্ন, বুধবার, ২৮ ফেব্রুয়ারী ২০২৪

 

সীমান্তের ওপারে তুমুল সংঘর্ষ এবং এবারে এসে মর্টার সেল পড়ার ঘটনা কেন্দ্র সীমান্তজুড়ে আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে। এ ঘটনায় বান্দরবানের নাইক্ষ্যংছড়ি উপজেলার ঘুমধুম ও তুমব্রু সীমান্তে পাঁচটি প্রাথমিক বিদ্যালয় ও একটি মাদ্রাসা বন্ধ রাখা হয়।

প্রায় এক মাস বন্ধ থাকার পর বুধবার সকাল থেকে এসব শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান চালু য়েছে। এরমধ্যে রয়েছে, ঘুমধুম সীমান্ত এলাকার বাইশ পারি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়, ভাজা বনিয়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়, তুমব্রু সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়, পশ্চিম কুল তুমব্রু সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়, দক্ষিণ ঘুমধুম সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় ও দক্ষিণ ঘুমধুম মিসকাতুল নবী দাখিল মাদ্রাসা।

ছবি সংগ্রহ

বান্দরবান জেলা প্রশাসক শাহ মোজাহিদ উদ্দিন সংবাদমাধ্যমকে জানান, সীমান্ত পরিস্থিতি স্বাভাবিক হওয়ায় বুধবার থেকে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানগুলো খুলে দেওয়ার নির্দেশ দেয়া হয়েছে।

গত ১৩ জানুয়ারি থেকে মিয়ানমার সীমান্তে দেশটির জান্তা বাহিনীর সঙ্গে আরাকান আর্মির লাগাতার সংঘর্ষ চলছে। এ কারণে ২৯ জানুয়ারি থেকে বাংলাদেশের বান্দরবানের নাইক্ষ্যংছড়ি উপজেলার ঘুমধুম ও তুমব্রু সীমান্তে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানগুলো বন্ধ ঘোষণা করেছিলো জেলা প্রশাসন।