ঢাকা ১২:৩০ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ১৬ জুলাই ২০২৪
সংবাদ শিরোনাম ::
Logo বাড্ডায় সড়ক অবরোধ করে বিক্ষোভ ব্র্যাক বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষার্থীদের Logo চট্টগ্রামের সীতাকুন্ডে সড়ক ও রেলপথ অবরোধ শিক্ষার্থীদের Logo কোটা আন্দোলনকারী শিক্ষার্থী ও ছাত্রলীগের পাল্টাপাল্টি কর্মসূচি Logo আতঙ্কে হল ছাড়ছেন ঢাবি শিক্ষার্থীরা Logo কোটা সংস্কার আন্দোলনে সহিংসতা, যুক্তরাষ্ট্রের উদ্বেগ Logo নিউইয়র্কে সাবের চৌধুরী-মটোমে তাকিসাওয়ার বৈঠক Logo রাজাকার  স্লোগান দিলে আর ছাড় নয়: রাবি ছাত্রলীগ সভাপতি Logo ঢাবিতে সংঘর্ষে আহত হয়ে ঢাকা মেডিকেলে ২২৬, আতঙ্ক Logo শিক্ষার্থীদের ওপর হামলা: দেশজুড়ে বিশ্ববিদ্যালয়ে মঙ্গলবার বিক্ষোভের ডাক Logo শিক্ষার্থীদের নিরাপত্তার জন্য  প্রাধ্যক্ষরা রাতভর হলে অবস্থান করবেন: উপাচার্য 

৫ হাজার নারী উদ্যোক্তাকে ৫০ হাজার করে অনুদানের ঘোষণা

প্রতিনিধির নাম
  • আপডেট সময় : ১১:১৮:৩৭ পূর্বাহ্ন, রবিবার, ৩ মার্চ ২০২৪ ১৬৬ বার পড়া হয়েছে

উইমেন এন্ড ই-কমার্স ট্রাস্ট উই’র উদ্যোগে আয়োজিত ‘উই কালারফুল ফেস্ট: ছবি সংগ্রহ

দৈনিক গনমুক্তি অনলাইনের সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি

 

আইসিটি বিভাগের অধীনে দেশের ৫ হাজার নারী উদ্যোক্তাদের প্রত্যেককে ব্যবসা শুরু করতে ৫০ হাজার টাকা অনুদান প্রদান করা হবে।

শনিবার (২ মার্চ) ঢাকার পূর্বাচলে নারী উদ্যোক্তাদের সংগঠন উইমেন এন্ড ই-কমার্স ট্রাস্ট উই’র উদ্যোগে আয়োজিত ‘উই কালারফুল ফেস্ট ২০২৪’ উদ্বোধন করে এই ঘোষণা দেন ডাক, টেলিযোগাযোগ ও তথ্যপ্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক।

প্রতিমন্ত্রী পলক বলেন, উইমেন এন্ড ই-কমার্সের মাধ্যমে দেশের ৬৪টি জেলা এবং ৫০০টি উপজেলায় দেশের নারী উদ্যোক্তাদের ব্যবসা শুরু করার জন্য স্টার্ট-আপ সিড মানি এই অর্থবছরে চালু করা হবে। আইসিটি বিভাগের অধীন বিগত দিনে আইডিয়া প্রকল্প হতে ২ হাজার নারী উদ্যোক্তাদের প্রত্যেককে ৫০ হাজার টাকা করে অনুদান প্রদান করা হয়েছে।

প্রতিমন্ত্রী বলেন, নারী উদ্যোক্তাদের মাধ্যমে ই-কর্মাস প্রসারিত হবার পাশাপাশি দক্ষতা বৃদ্ধিতে আইসিটি বিভাগ নারী উদ্যোক্তাদের প্রশিক্ষণ দিচ্ছে। নারী উদ্যোক্তারা দেশের অর্থনৈতিক উন্নয়নে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রেখে চলেছেন। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার দূরদর্শী নেতৃত্বের কারণে তা সম্ভব হচ্ছে।

পলক বলেন, ইউনিয়ন পর্যন্ত বিস্তৃত হয়েছে স্বল্পমূল্যে উচ্চ গতির ইন্টারনেট সুবিধা। বর্তমানে দেশে ইন্টারনেট ব্যবহারকারী সংখ্যা ১৩ কোটির অধিক। উচ্চ গতির ইন্টারনেট সুবিধা থাকার ফলে উদ্যোক্তারা তাদের পণ্য এবং ব্যবসা প্রসার করতে সম্ভব হচ্ছে বলে উল্লেখ করেন জুনায়েদ আহমদ পলক।

জনগণের দোরগোড়ায় সেবা পৌঁছে দিতে সারাদেশে ৯ হাজারের অধিক ডিজিটাল সেন্টারে ১৮ হাজারের বেশি উদ্যোক্তা কাজ করছেন। যেখানে প্রায় ৫০ শতাংশই নারী উদ্যোক্তা।

শী পাওয়ার প্রজেক্টের মাধ্যমে ২১টি জেলায় ১০ হাজার ৫শ নারী উদ্যোক্তা তৈরি ছাড়াও বাকী ৪৩টি জেলায় পাওয়ার প্রজেক্টের মাধ্যমে আরও ২৫ হাজারের অধিক স্মার্ট নারী উদ্যোক্তা তৈরি করা হবে।

অনুষ্ঠানে ঢাকায় যুক্তরাষ্ট্র দূতাবাসের অর্থনীতি, বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিষয়ক ফরেন সার্ভিস অফিসার জেমস গার্ডিনার, বাংলাদেশ হাইটেক-পার্ক কর্তৃপক্ষের এমডি জিএসএম জাফরউল্লাহ, ই-ক্যাবের সভাপতি শমী কায়সার, উইমেন ও ই-কমার্স ফোরামের প্রতিষ্ঠাতা নাসিমা আক্তার নিশা প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

নিউজটি শেয়ার করুন

ট্যাগস :

৫ হাজার নারী উদ্যোক্তাকে ৫০ হাজার করে অনুদানের ঘোষণা

আপডেট সময় : ১১:১৮:৩৭ পূর্বাহ্ন, রবিবার, ৩ মার্চ ২০২৪

 

আইসিটি বিভাগের অধীনে দেশের ৫ হাজার নারী উদ্যোক্তাদের প্রত্যেককে ব্যবসা শুরু করতে ৫০ হাজার টাকা অনুদান প্রদান করা হবে।

শনিবার (২ মার্চ) ঢাকার পূর্বাচলে নারী উদ্যোক্তাদের সংগঠন উইমেন এন্ড ই-কমার্স ট্রাস্ট উই’র উদ্যোগে আয়োজিত ‘উই কালারফুল ফেস্ট ২০২৪’ উদ্বোধন করে এই ঘোষণা দেন ডাক, টেলিযোগাযোগ ও তথ্যপ্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক।

প্রতিমন্ত্রী পলক বলেন, উইমেন এন্ড ই-কমার্সের মাধ্যমে দেশের ৬৪টি জেলা এবং ৫০০টি উপজেলায় দেশের নারী উদ্যোক্তাদের ব্যবসা শুরু করার জন্য স্টার্ট-আপ সিড মানি এই অর্থবছরে চালু করা হবে। আইসিটি বিভাগের অধীন বিগত দিনে আইডিয়া প্রকল্প হতে ২ হাজার নারী উদ্যোক্তাদের প্রত্যেককে ৫০ হাজার টাকা করে অনুদান প্রদান করা হয়েছে।

প্রতিমন্ত্রী বলেন, নারী উদ্যোক্তাদের মাধ্যমে ই-কর্মাস প্রসারিত হবার পাশাপাশি দক্ষতা বৃদ্ধিতে আইসিটি বিভাগ নারী উদ্যোক্তাদের প্রশিক্ষণ দিচ্ছে। নারী উদ্যোক্তারা দেশের অর্থনৈতিক উন্নয়নে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রেখে চলেছেন। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার দূরদর্শী নেতৃত্বের কারণে তা সম্ভব হচ্ছে।

পলক বলেন, ইউনিয়ন পর্যন্ত বিস্তৃত হয়েছে স্বল্পমূল্যে উচ্চ গতির ইন্টারনেট সুবিধা। বর্তমানে দেশে ইন্টারনেট ব্যবহারকারী সংখ্যা ১৩ কোটির অধিক। উচ্চ গতির ইন্টারনেট সুবিধা থাকার ফলে উদ্যোক্তারা তাদের পণ্য এবং ব্যবসা প্রসার করতে সম্ভব হচ্ছে বলে উল্লেখ করেন জুনায়েদ আহমদ পলক।

জনগণের দোরগোড়ায় সেবা পৌঁছে দিতে সারাদেশে ৯ হাজারের অধিক ডিজিটাল সেন্টারে ১৮ হাজারের বেশি উদ্যোক্তা কাজ করছেন। যেখানে প্রায় ৫০ শতাংশই নারী উদ্যোক্তা।

শী পাওয়ার প্রজেক্টের মাধ্যমে ২১টি জেলায় ১০ হাজার ৫শ নারী উদ্যোক্তা তৈরি ছাড়াও বাকী ৪৩টি জেলায় পাওয়ার প্রজেক্টের মাধ্যমে আরও ২৫ হাজারের অধিক স্মার্ট নারী উদ্যোক্তা তৈরি করা হবে।

অনুষ্ঠানে ঢাকায় যুক্তরাষ্ট্র দূতাবাসের অর্থনীতি, বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিষয়ক ফরেন সার্ভিস অফিসার জেমস গার্ডিনার, বাংলাদেশ হাইটেক-পার্ক কর্তৃপক্ষের এমডি জিএসএম জাফরউল্লাহ, ই-ক্যাবের সভাপতি শমী কায়সার, উইমেন ও ই-কমার্স ফোরামের প্রতিষ্ঠাতা নাসিমা আক্তার নিশা প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।